৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

পলাশ পাত্র, তেহট্ট: যুবককে খুনের অভিযোগ উঠল প্রেমিকা ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে নদিয়ার হোগলাবেড়িয়ার জামশেরপুরের গোপালনগরে। ইতিমধ্যেই যুবকের প্রেমিকা, তার মা ও বাবাকে কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শুরু হয়েছে তদন্ত।

[আরও পড়ুন: পুরুলিয়ার টুরগা প্রকল্পের বিরোধিতায় তথ্যচিত্র প্রদর্শন, পুলিশের জালে নির্মাতা-সহ ২]

জানা গিয়েছে, সোমবার সন্ধেয় কাজ সেরে বাড়ি ফেরে বছর পঁচিশের রাজেশ রায়। এরপর খাওয়াদাওয়া করে ফের বাড়ি থেকে বেরিয়ে পড়েন তিনি। এর কিছুক্ষণ পর কয়েকজন লোক ওই যুবকের বাড়িতে চড়াও হয়। রাজেশের খোঁজ করে তারা। কী প্রয়োজন জিজ্ঞেস করলে রাজেশের মাকে তারা জানায়, তাদের মেয়ে প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে প্রণয়ের সম্পর্ক ছিল রাজেশের। তারা পালিয়ে গিয়েছে। তারা অভিযোগ করেন রাজেশের পরিবার গোটা বিষয়টি জানে। তাই দ্রুতই ওই যুগল কোথায় রয়েছে তা যেন বলে দেয়। কিন্তু রাজেশের পরিবারের কেউই কিছু বলতে না পারায় সেই সময় তারা ফিরে যায়। রাত সাড়ে বারোটা নাগাদ ফের রাজেশের খোঁজে তার বাড়ি যায় প্রিয়াঙ্কার পরিবারের সদস্যরা। সেবারও সদুত্তর না পেরেই ফিরতে হয় তাঁদের।

RAJESH-2
কান্নায় ভেঙে পড়েছে রাজেশের পরিবার।

ভোর চারটে নাগাদ রাজেশের বাড়ি গিয়ে ওই কিশোরীর পরিবারের সদস্যরা জানান, তারা প্রতিশোধ নিয়েছে। রাজেশকে আমগাছে ঝুলিয়ে দিয়েছেন তারা। পরে গ্রামেরই একটি আমগাছ থেকে উদ্ধার হয় রাজেশের ঝুলন্ত দেহ। এরপরই খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ, এসডিপিও। এরপরই অভিযুক্তদের শাস্তির দাবিতে সরব হন স্থানীয়রা। পুলিশ সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে ওই কিশোরী, তার মা ও বাবাকে। মৃতের মায়ের অভিযোগ, পরিকল্পনামাফিক বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েই খুন করা হয়েছে রাজেশকে। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, খুনের পর গোটা বিষয়টি চাপতেই একাধিকবার রাজেশের বাড়ি যায় ওই কিশোরীর পরিবার। মনে করা হচ্ছে, সোমবার বিকেলে ওই কিশোরীকে রাজেশের সঙ্গে দেখে ফেলেছিল পরিবারের সদস্যরা। সেই কারণেই খুনের ছক কষে তারা। প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই একই ঘটনা ঘটেছিল তেহট্টে। বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে এক যুবককে খুনের অভিযোগ উঠেছিল প্রেমিকার পরিবারের বিরুদ্ধে।

[আরও পড়ুন: কোচবিহারের হোমে অগ্নিদগ্ধ হয়ে মৃত কিশোর, খুনের অভিযোগ দায়ের পরিবারের]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং