BREAKING NEWS

২৮ চৈত্র  ১৪২৭  রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

Bengal Polls: কালচিনিতে তৃণমূল নেতার বাড়িতে বোমাবাজি, অভিযোগের তির বিজেপির বিরুদ্ধে

Published by: Arupkanti Bera |    Posted: April 4, 2021 8:04 pm|    Updated: April 5, 2021 1:24 pm

An Images

রাজ কুমার, আলিপুরদুয়ার: ভোট (West Bengal Assembly Election 2021) যত এগিয়ে আসছে ততই উত্তাপ বাড়ছে আলিপুরদুয়ারেও (Alipurduar)। শনিবার রাতে কালচিনি বিধানসভা এলাকার রাজাভাতখাওয়া গ্রামপঞ্চায়েত এলাকার এক তৃণমূল (TMC) নেতার বাড়ি লক্ষ্য করে বোমাবাজির ঘটনা ঘটল। এই বোমাবাজির পিছনে বিজেপির (BJP) হাত রয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপি।

রাজাভাতখাওয়া গ্রামপঞ্চায়েত এলাকার তৃণমূল সহসভাপতি জ্যোতিষ রাভার বাড়ি লক্ষ্য করে এই বোমাবাজি হয় বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে। জ্যোতিষ রাভা এলাকার দক্ষিণ-পোরো বসতির বাসিন্দা। তাঁকে ২৯ মার্চ গ্রামপঞ্চায়েত এলাকার তৃণমূল সহসভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়। অভিযোগ এর পর থেকেই তাঁকে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার জন্য স্থানীয় গেরুয়া শিবিরের তরফে চাপ দেওয়া হচ্ছিল। কিন্তু জ্যোতিষ রাভা দল ছাড়তে চাননি।

[আরও পড়ুন: ফাঁদে ফেলেই কি জওয়ানদের হত্যা করল মাওবাদীরা? বিজাপুর সংঘর্ষ নিয়ে উঠছে প্রশ্ন]

শনিবার ইস্টার স্যাটারডের অনুষ্ঠান ছিল রাভা বসতি এলাকায়। প্রচুর বাজি ফাটছিল, ডিজে বাজছিল। সারাদিন রাজনৈতিক কর্মসূচি সেরে রাত্রে অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার পর বাড়ি ফিরে ক্লান্তিতে তাড়াতাড়ি ঘুমিয়ে পড়েন জ্যোতিষ রাভা। অভিযোগ, তার কিছুক্ষণ পর থেকে বোমাবাজি শুরু হয় তাঁর বাড়ি লক্ষ্য করে। কিন্তু তিনি বাজি আর ডিজের শব্দের মাঝে বোমার আওয়াজ আলাদা করে বুজতে পারেননি। কিন্তু পরে বেরিয়ে দেখেন বাড়ির দেওয়ালে বোমার চিহ্ন। চার দিকে ছড়িয়ে রয়েছে বোমার সুতলি ও অন্যান্য অংশ। পরে কালচিনি থানায় অভিযোগ জানানো হয়েছে।

এই হামলার পিছনে বিজেপির হাত রয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। কিন্তু স্থানীয় বিজেপি নেতা কৃপাশংকর জয়সওয়াল দাবি করেছেন, গোটা রাজ্যের মতো এটাও তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দলের ফল। তাঁর আরও দাবি, বিজেপি এই ধরনের কাজ করে না।

[আরও পড়ুন:‘এটা ইলেকশন নাকি বিজেপির সিলেকশন, কার প্রমোশন হচ্ছে নজর রাখছি’, বারুইপুরে কমিশনকে এক হাত মমতার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement