BREAKING NEWS

২ মাঘ  ১৪২৭  শনিবার ১৬ জানুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নাম না করে অমিত শাহকে গরু বলে কটাক্ষ অনুব্রতর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 25, 2018 9:13 pm|    Updated: January 11, 2021 5:57 pm

An Images

ধীমান রায়, কাটোয়া: “দশবিঘা একটা জমি। প্রচন্ড ঘাস। মাত্র চার পাঁচটা গরু নেমে কি ওই ঘাস শেষ করতে পারবে?” বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহের পশ্চিমবঙ্গ সফর নিয়ে এভাবেই কটাক্ষ করলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। সোমবার আউশগ্রামের ভেদিয়ায় দলীয় বৈঠকে এসেছিলেন অনুব্রত। প্রথমে তিনি স্থানীয় ব্লক ও অঞ্চল স্তরের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করেন। তারপর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন। তখন অমিত শাহের পশ্চিমবঙ্গ সফর নিয়ে এই কথা বলেন অনুব্রত।

বৃহস্পতিবার পর্যন্ত চলবে ভারী বৃষ্টি, পরিস্থিতির উপর কড়া নজর রাজ্যের ]

আউশগ্রামে গত ১৩ জুন দলীয় কর্মী উজ্জ্বল বন্দ্যোপাধ্যায় খুন হয়েছিলেন। খুনের ঘটনায় অভিযোগ উঠেছিল দলেরই একাংশের বিরুদ্ধে। পুলিশ ওই খুনের ঘটনায় মূল অভিযুক্ত জয়দেব মণ্ডল-সহ ৭ জনকে ইতিমধ্যে গ্রেপ্তারও করেছে। উল্লেখ্য, মাস তিনেক আগে জয়দেব মণ্ডলকে বিল্বগ্রাম অঞ্চল তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতির দায়িত্ব দিয়েছিলেন আউশগ্রাম ব্লক তৃণমূল নেতৃত্ব। কিন্তু আজ অনুব্রত বলেন, “উজ্বল আমাদের একজন ভাল কর্মী ছিলেন। জয়দেব মণ্ডলের দ্বারা উজ্বল খুন হয়েছে বলে শুনেছি। জয়দেব সিপিএম থেকে এসেছিল। এবারে পঞ্চায়েত ভোটের সময় ঝামেলা করেছিল। পুলিশ খুনের ঘটনায় যথাযথ ব্যবস্থা নিচ্ছে।”

তাড়া করে গাড়ির যন্ত্রাংশ পাচার চক্রের পাঁচ দুষ্কৃতীকে ধরল পুলিশ ]

দলীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, আউশগ্রাম ১ ব্লকের ৭টি অঞ্চল সভাপতি ও ব্লক সভাপতি এবং আউশগ্রাম ২ ব্লক তৃণমূল সভাপতিকে নিয়ে সোমবার ভেদিয়ার একটি রিসর্টে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন অনুব্রত। তিনি স্থানীয় নেতৃত্বদের কড়া নির্দেশ দেন, সকলে যাতে দলের অনুশাসন মেনে চলেন। পাশপাশি তিনি জানিয়েছেন আগামী লোকসভা ভোট পর্যন্ত আউশগ্রাম ১ ব্লক তৃণমূল সভাপতির পদে শেখ টগরই থাকবেন।

প্রসঙ্গত আগামী ২৮ জুন বিজেপি সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহের তারাপীঠে পুজো দিতে আসার কথা। এই প্রসঙ্গে অনুব্রত মণ্ডলের প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, “তিনি মা তারার পুজো করতে আসছেন। আমিও তো বৈদ্যনাথ যাই। সোমনাথ গিয়েছি। আমিও অনেক জায়গায় গিয়েছি। এটা পশ্চিমবঙ্গ। দশ বিঘা জমির ঘাট। পাঁচটা গরু নেমে শেষ করতে পারবে না।”

ছবি: জয়ন্ত দাস

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement