BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

লকডাউনে কর্মহীন আইনজীবীদের আর্থিক সাহায্য দিচ্ছে রাজ্য বার কাউন্সিল

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: June 13, 2020 6:20 pm|    Updated: June 13, 2020 6:47 pm

An Images

শুভঙ্কর বসু: লকডাউনের জেরে কর্মহীন আইনজীবীদের আর্থিক সাহায্যের পথ প্রশস্ত হল। প্রায় ২১ হাজার আইনজীবীকে ৩ হাজার টাকা করে আর্থিক সাহায্য দেবে রাজ্য বার কাউন্সিল। এর জন্য খরচ হবে প্রায় ৬ কোটি টাকা। আগামী মঙ্গলবার থেকেই ধাপে ধাপে আইনজীবীদের সাহায্যের অর্থ তুলে দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। কাউন্সিলের এমন পদক্ষেপের জন্য তাদের ধন্যবাদ জানিয়েছে তৃণমূল আইনজীবী সেল।

সেলের দাবি, মূলত তাদের উদ্যোগেই এই আর্থিক সাহায্যের পথ প্রশস্ত হল। যদিও এ নিয়ে কম জল ঘোলা হয়নি। কলকাতা হাইকোর্টে একটি মামলাও চলছে। কয়েক দিন আগেই বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অশোক দেব ও কয়েকজন মেম্বারের বিরুদ্ধে আর্থিক আর্থিক সাহায্য দেওয়ায় টালবাহানার অভিযোগ এনে সরব হয় কাউন্সিলের অপর গোষ্ঠী। দাবি করা হয়, জেনারেল ফান্ড, রুল-৪০ ফান্ড, এনরোলমেন্ট ফান্ড, লাইব্রেরি ফান্ড, প্রভিডেন্ট ফান্ড, ট্রাস্ট ওয়েলফেয়ার ফান্ড এবং ল’ইয়ার্স ওয়েলফেয়ার কর্পোরেশনের অর্থ মিলিয়ে কাউন্সিলের ভাঁড়ারে কয়েক কোটি টাকা থাকলেও তা ভাঙ্গা হচ্ছে না।

[আরও পড়ুন: করোনা রুখতে বজায় থাকছে সামাজিক দূরত্ব? বলে দেবে খড়্গপুর আইআইটির তৈরি অত্যাধুনিক যন্ত্র]

যদিও এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে কাউন্সিলের সদস্য ও ডিসিপ্লিনারি কমিটির চেয়ারম্যান প্রসুন দত্ত বলেন, “দিল্লি বার কাউন্সিল ছাড়া কোন রাজ্যের বার কাউন্সিল আইনজীবীদের এখনও কোনও সাহায্য দেয়নি। রাজ্য বার কাউন্সিল এবং রাজ্য সরকারের ভাবমূর্তিকে ক্ষুণ্ন করতেই ইচ্ছাকৃতভাবে এমনটা করা হয়েছিল। প্রথমত লকডাউনের জেরে মেম্বাররা অফিসে আসতে না পারায় আলোচনার মাধ্যমে এগজিকিউটিভ কমিটিতে এ ব্যাপারে রেজোলিউশন পাশ করা যায়নি। মূলত সে কারণেই সিদ্ধান্ত নিতে দেরি হচ্ছিল। এছাড়াও অনেক আইনি জটিলতাও ছিল। সেই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে এ নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছিল কাউন্সিলের কিছু মেম্বার।” বার কাউন্সিল অফ ইন্ডিয়া তরফে কিছু সাহায্য মিলছে। বাকিটা রাজ্য বার কাউন্সিলের তরফেই দেওয়া হচ্ছে। আপাতত ঠিক হয়েছে, রাজ্যের মোট ১৯৩টি বারের আইনজীবীদের তরফে জমা পড়া ২১ হাজার আবেদনের প্রেক্ষিতে সকলকে আর্থিক সাহায্য দেওয়া হবে। বিভিন্ন কারণে যারা আবেদন জমা দিতে পারেননি পরবর্তী সময় তাদেরকেও এই সাহায্যের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement