BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  রবিবার ২৯ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

তৃণমূলের মদতে তারকেশ্বর মন্দিরে পুজো দিতে বাধা, অভিযোগ দিলীপের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: October 13, 2017 6:50 am|    Updated: October 13, 2017 6:50 am

BJP’s Dilip Ghosh ‘denied entry’ at Tarakeshwar temple

দিব্যেন্দু মজুমদার, হুগলি: ফের শিরোনামে দিলীপ ঘোষ। এবার তারকেশ্বর মন্দিরে বিজেপি রাজ্য সভাপতির পুজো ঘিরে বিপত্তি। দিলীপের দাবি তাঁকে পুজো দিতে বাধা দেওয়া হয়। যে পুজারীকে নিয়ে পুজো দেওয়ার কথা ছিল তাঁকে আসতে দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ বিজেপি রাজ্য সভাপতির। তবে তৃণমূলের পালটা বক্তব্য, প্রচারে আসতে এমন কথা বলছেন দিলীপ।

[সেরা কালীপুজো নিয়ে কার্নিভাল করবে লালবাজার]

শুক্রবার সকাল সোওয়া সাতটা নাগাদ আচমকা তারকেশ্বরে শিবের মন্দিরে যান দিলীপ ঘোষ। তাঁর সঙ্গে ছিলেন হুগলির বিজেপি জেলা সভাপতি ভাস্কর ভট্টাচার্য এবং কয়েকজন অনুগামী। দিলীপ ঘোষের অভিযোগ, মন্দিরে যে সেবাইতকে সঙ্গে নিয়ে তাঁর পুজো দেওয়ার কথা ছিল তাঁকে আসতে বাধা দেওয়া হয়। ওই পুজারীকে নানাভাবে হুমকি দেওয়া হয়। পুজারীর ডালা বন্ধ করে দেওয়ার শাসানি দেয় শাসক দল। এই কারণে ওই সেবাইত দিলীপ ঘোষের সঙ্গে যেতে পারেননি। বাধ্য হয়ে অন্য এক পুরোহিতকে নিয়ে তাঁকে পুজো দিতে হয় বলে দাবি করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। মন্দিরে যাওয়ার আধ ঘণ্টা পর তাঁর পুজোপর্ব শেষ হয়। দিলীপের এই অভিযোগকে গুরুত্ব দিতে রাজি নিয় শাসক দল। তারকেশ্বর পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান তথা তৃণমূল নেতা উত্তম কুণ্ডুর বক্তব্য, এধরনের অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন। প্রচারে আসার জন্য এমন কথা বলছেন দিলীপবাবু।

[তারকেশ্বর মন্দির ট্রাস্টের চেয়ারম্যান ফিরহাদ হাকিম! জানেন সত্যিটা কী?]

তবে এই ঘটনা নিয়ে মন্দির কমিটি অবশ্য কুলুপ এঁটেছে। কয়েক মাস আগে তারকেশ্বর উন্নয়ন পর্ষদ তৈরি করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই পর্ষদের চেয়ারম্যান করা হয়েছিল ফিরহাদ হাকিমকে। যা নিয়ে বিস্তর জলঘোলা হয়েছিল। কয়েক দিন আগে দার্জিলিংয়ে গিয়ে নিগ্রহের মুখে পড়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। মার খেয়েছিলেন তাঁর সঙ্গীরা। সমতলে ফিরে আসার পর ফের বিতর্কের মুখে বিজেপির রাজ্য সভাপতি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে