২৪ বৈশাখ  ১৪২৮  শনিবার ৮ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘অনেক হয়েছে মমতা, পরিবর্তন চাইছে জনতা’, নবদ্বীপে নতুন স্লোগান নাড্ডার

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: February 6, 2021 4:53 pm|    Updated: February 6, 2021 4:53 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: “অনেক হয়েছে মমতা, পরিবর্তন চাইছে জনতা।” নবদ্বীপে বিজেপির পরিবর্তন যাত্রার সুচনায় তৃণমূলের বিরুদ্ধে নতুন স্লোগান বেঁধে দিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা (JP Nadda)। তাঁর দাবি, বাংলায় বিজেপির পক্ষে হাওয়া বইছে, যা মমতাকে ক্ষমতাচ্যুত করবে। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির দাবি, তৃণমূল সরকার, মা-মাটি-মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করেছে। এই সরকার বিশ্বাসঘাতক। বাংলায় লুটতরাজ চালিয়েছে তৃণমূল। আমফান এবং রেশন দুর্নীতিকে হাতিয়ার করে নাড্ডা বাংলায় পরিবর্তনের ডাক দেন। বলে দেন, “এই পরিবর্তন যাত্রা বাংলার মানুষকে জাগ্রত করার যাত্রা। এই পরিবর্তন শুধু রাজনৈতিক পরিবর্তন নয়, মতাদর্শগত পরিবর্তন। বাংলার মানুষ জেগে উঠেছেন।”

নবদ্বীপের পরিবর্তন যাত্রার সূচনা মঞ্চ থেকে দুর্নীতি, স্বজনপোষণ, পরিবারতন্ত্রের পাশাপাশি তৃণমূলের অস্ত্রেই তৃণমূলকে কাত করার চেষ্টা করেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি। বাংলার নির্বাচনে শাসকদল যে স্থানীয় বনাম বহিরাগত ইস্যুকে হাতিয়ার করে এগোতে চাইছে, সেটা নিয়েই তৃণমূলকে পালটা দিয়েছেন নাড্ডা। বিজেপি সভাপতি বলছেন,”এঁরা বাঙালি-বহিরাগত ইস্যু নিয়ে সামনে আসছে। কিন্তু এটা বাংলার সংস্কৃতি নয়। মমতা বাংলার সংস্কৃতির অনাদর করছেন। আমার নামের পর যেভাবে বিশেষণ লাগাচ্ছেন, তাতেই বোঝা যাচ্ছে আপনার বুদ্ধিভ্রষ্ট হয়েছে। আপনি বাংলার সংস্কৃতির অপমান করেছেন। বাংলার সংস্কৃতির কদর শুধু প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) করছেন। আমি দায়িত্ব নিয়ে বলছি, বাংলার সংস্কৃতির নেতৃত্ব একজন বাঙালিই করবেন।” বস্তুত বিজেপি (BJP) সভাপতি আরও একবার স্পষ্ট করে দিলেন, বিজেপি ক্ষমতায় এলে এরাজ্যের কোনও ভূমিপুত্রই মুখ্যমন্ত্রী হবেন।

[আরও পড়ুন: একুশের ভোটের পর ৩৫ বিধায়ক নিয়ে বিজেপিতে যোগের ছক! শুভেন্দুর ‘ষড়যন্ত্র’ ফাঁস অভিষেকের]

নাড্ডার অভিযোগ, মমতার (Mamata Banerjee) সরকার শুধু রাজনৈতিক কারণে বাংলায় কিষাণ সম্মান নিধি চালু করেনি। আয়ুষ্মান ভারত চালু করেনি। রাজ্যের মানুষকে ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত করেছে তৃণমূল সরকার। তিনি জানিয়ে দিয়েছেন,”মমতা সরকারের পতন ঘটলেই ৭০ লক্ষ কৃষক কিষাণ সম্মান নিধি পাবেন। নিজেদের অধিকার পাবেন কৃষকরা। বাংলায় চালু হবে আয়ুষ্মান ভারত যোজনাও। ২৩ মের পর বাংলায় সব হবে।” বিজেপি সভাপতির অভিযোগ, একজন মহিলা মুখ্যমন্ত্রী হওয়া সত্ত্বেও রাজ্যে নারীরা সুরক্ষিত নন। ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ড ব্যুরোর (NCB) রেকর্ড অনুযায়ী, বাংলায় নারীরা সবচেয়ে অসুরিক্ষত। এরাজ্যে সবচেয়ে বেশি ধর্ষণ হয়।” যদিও বাস্তব পরিসংখ্যান বলছে নাড্ডার দেওয়া এই তথ্য অসত্য, দেশের মধ্যে নারীরা সবচেয়ে বেশি অসুরক্ষিত বিজেপি শাসিত উত্তরপ্রদেশে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement