BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

হাওড়ার শ্যামপুরের তরুণীর শরীরে করোনার থাবা, কোয়ারেন্টাইনে গোটা পরিবার

Published by: Bishakha Pal |    Posted: May 9, 2020 8:02 pm|    Updated: May 9, 2020 8:05 pm

An Images

মনিরুল ইসলাম, উলুবেড়িয়া: শ্যামপুরের কমলপুরের শ্রীকোল গ্রামের এক তরুণীর দেহে COVID-19 ভাইরাসের সন্ধান মিলল। পরিবারের পাঁচ জনকে পাঠানো হয়েছে কোয়ারেন্টাইনে। এছাড়া এলাকার ২৬টি পরিবারকে হোম কোয়রেন্টাইনে থাকতে বলা হয়েছে।‌ বর্তমানে ওই তরুণী কলকাতায় চিকিৎসাধীন। প্রসঙ্গত মাস খানেক আগে শ্যামপুরেরই জয়নগরে দুই করোনা রোগী সন্ধান মিলেছিল।

প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, শ্যামপুর ১ নম্বর ব্লকের কমলপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের ওই তরুণী দীর্ঘদিন ধরেই কিডনির সমস্যায় ভুগছিলেন। তাঁর কিডনি ট্রান্সপ্লান্টেশনও হয়েছিল। তিনি নিয়মিত নাগের বাজারের একটি বেসরকারি হাসপাতালে চেকআপ করাতে আসতেন। গত ২৫ এপ্রিল তরুণী ওই বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি হন চেকআপের জন্যই। তারপর তাঁর শরীরে করোনার উপসর্গ দেখা যায়। তাঁর লালারসের নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। শুক্রবার সেই নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসে। তাতে তরুণীকে করোনা আক্রান্ত বলা হয়। এই খবর আসার পরেই শুক্রবার রাতেই তরুণীর পরিবার ও তাঁদের সঙ্গে সম্পর্কযুক্তদের কোয়রেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। কোয়রেন্টাইনে রয়েছেন ওই তরুণীর বাবা, মা, ভাই, পরিচারিকা ও তাঁর শিশু এবং গাড়ির চালক। এছাড়াও ওই তরুণীর প্রতিবেশী ২৬টি পরিবারকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন। এছাড়া হোগলাসি মোড় থেকে কমলপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের পর্যন্ত কন্টেনমেন্ট জোন হিসাবে ঘোষণা করা হয়েছে।

[ আরও পড়ুন: প্ল্যাটফর্মেই সন্তান প্রসব, পাঁচদিন ধরে শেওড়াফুলি স্টেশনে অবহেলায় পড়ে মা ও শিশু ]

এদিকে শনিবার সকালে এলাকায় যান শ্যামপুর ১ নম্বর ব্লকের বিডিও সঞ্চয়ণ পান ও পুলিশ কর্তারা। তারা এলাকার লোকেদের সঙ্গে কথা বলেন। পাশাপাশি বাসিন্দাদের জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাড়ির বাইরে বেরোতে নিষেধ করেন। হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা লোকেদের প্রয়োজনে তাঁদের পাশে থাকার জন্য এলাকায় কিছু স্বেচ্ছাসেবক নিয়োগ করার পরিকল্পনাও করছে প্রশাসন।

[ আরও পড়ুন: ষড়যন্ত্র করে স্ত্রী-মেয়েকে খুনের অভিযোগ, আইনজীবী-সহ ৩ জনকে গণপিটুনি প্রতিবেশীদের ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement