BREAKING NEWS

১৪ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ১ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

Coronavirus Update: রাজ্যের কোভিড গ্রাফে সামান্য স্বস্তি, খানিকটা কমল দৈনিক সংক্রমণ, পজিটিভিটি রেট

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: September 24, 2022 7:59 pm|    Updated: September 24, 2022 8:32 pm

Coronavirus in West Bengal: 314 new cases in last 24 hours, slight lower than yesterday one death | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পুুজোর মুখে রাজ্যের কোভিড (COVID-19) গ্রাফে সামান্য স্বস্তি। শনিবারের রাজ্য়ের করোনা বুলেটিন অনুযায়ী দৈনিক সংক্রমণ, পজিটিভিটি রেট নিম্নমুখী। সুস্থতার হারও বাড়ছে। কিন্তু উৎসবের মরশুমে সামগ্রিকভাবে রাজ্যের কোভিড সংক্রমণের হার চিন্তায় রাখছে স্বাস্থ্যমহলকে। 

শনিবারের রাজ্য স্বাস্থ্যদপ্তরের কোভিড পরিসংখ্যান বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে করোনায় (Coronavirus) আক্রান্ত হয়েছেন ৩১৪ জন। যা শুক্রবার ছিল সাড়ে তিনশোর বেশি। মৃত্যু হয়েছে ১ জনের। আর একদিনে মহামারীর কবল থেকে মুক্ত হয়েছেন ১৯৬ জন, শুক্রবার তা ছিল সামান্য কম। এই মুহূর্তে রাজ্য়ে সুস্থতার হার ৯৮.৮৪ শতাংশ। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এখনও পর্যন্ত রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২১, ১২,৮৭২। সুস্থ হয়েছেন ২০,৮৮,৪২৫জন। আর করোনার বলি মোট ২১,৪৯৫ জন। এই মুহূর্তে অ্য়াকটিভ কোভিড রোগীর সংখ্যা ২৯৫২, যার মধ্যে শতাধির রোগী ভরতি হাসপাতালে।

[আরও পড়ুন: আন্দোলন নিয়ে দ্বিধাবিভক্ত কুড়মিরা, অবরোধ তুলতে নারাজ একাংশ, দায় এড়ালেন প্রধান]

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে কোভিডের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৭,৩৬২। এর মধ্যে ৪.২৬ শতাংশ রিপোর্ট পজিটিভ। শুক্রবার পজিটিভিটি রেট ছিল ৪.৬০ শতাংশ।  শনিবার তা সামান্য কমেছে। এদিকে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে টিকাকরণ (Corona vaccination) কর্মসূচি চলছে। পুজোর সময়ও তা বন্ধ থাকবে না। রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় ৬৩,৩৭২ ডোজ দেওয়া হয়েছে টিকার। চলছে প্রিকশন ও বুস্টার ডোজ দেওয়ার কাজ।

[আরও পড়ুন: শিবাজির মাটিতে ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলল PFI, কড়া প্রতিক্রিয়া মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর]

পুজো প্রস্তুতি প্রায় শেষ। কেনাকাটার শেষ পর্ব চলছে। বাজারে ভিড় বাড়ছে রোজই। অনেকেরই মুখে নেই মাস্ক, শারীরিক দূরত্ববিধি মানার বালাই নেই। এসব পরিস্থিতির জন্যই ফের করোনা সংক্রমণ বাড়ছে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁদের পরামর্শ, উৎসবে মেতে ওঠার পাশাপাশি সাবধানতা অবলম্বনও জরুরি। জনবহুল জায়গায় ঘোরার সময় অবশ্যই মাস্ক থাকুক মুখে। সামান্য জ্বর বা সর্দি-কাশি হলে অবহেলা নয়, দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে ওষুধ খান।

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে