২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  রবিবার ১৪ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

COVID-19 Update: রাজ্যে সামান্য কমল দৈনিক করোনা সংক্রমণ, শীর্ষে কলকাতা, চিন্তা বাড়াচ্ছে এই জেলাও

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: August 6, 2022 7:01 pm|    Updated: August 6, 2022 8:51 pm

COVID-19 in West Bengal: 738 new cases in last 24 hours, 4 death | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা (Coronavirus) পরিস্থিতির তেমন পরবর্তন নেই বাংলায়। কোভিড (COVID-19) গ্রাফের ওঠানামা নগণ্য। গতদিনের তুলনায় সংক্রমণ কমেছে সামান্যই। শনিবার রাজ্য স্বাস্থ্যদপ্তরের সাম্প্রতিকতম পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে কোভিড পজিটিভ ৭৩৮। মৃত্যু হয়েছে ৪ জনের। শুক্রবার এই সংখ্যা ছিল সামান্য কম। কমেছে পজিটিভিটি রেটও। এই মুহূর্তে তা ৫.৯ শতাংশ। শুক্রবারও ছিল ৬.৩২ শতাংশ।

 

রাজ্যের কোভিড বুলেটিনের দিকে নজর রাখলে দেখা যাচ্ছে, দৈনিক সংক্রমণ কমলেও গত ২৪ ঘণ্টায় একটি জেলাও সংক্রমণশূন্য নয়। এমন নজির কম। রাজ্যের প্রত্যেক জেলায় অন্তত একজন হলেও আক্রান্ত হয়েছেন।  সংক্রমণের শীর্ষে কলকাতা (Kolkata)। এখানে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ১৪৯ জন। তারপরই রয়েছে বীরভূম, এখানে আক্রান্তের সংখ্যা ১২৬। তৃতীয় স্থানে উত্তর ২৪ পরগনা। একদিনে ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন ১০৯ জন। এই তিন জেলাতেই সংক্রমণ শতাধিক।  রাজ্যের কোভিড গ্রাফ মোটের উপর এমনই। 

[আরও পড়ুন: ৪ সন্তানকে নিয়ে কুয়োতে ঝাঁপ তরুণীর, নিজে বাঁচলেও হারালেন চার শিশুকেই]

সংক্রমণের পাশাপাশি মৃত্যুর নিরিখেও শীর্ষে কলকাতা। একদিনে এখানে করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ২ জন। এছাড়া উত্তর ২৪ পরগনা ও পশ্চিম মেদিনীপুরে ১ জন করে মোট ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে গোটা রাজ্য়ে। তবে পজিটিভিটি রেট কমেছে খানিকটা। কমেছে অ্যাকটিভ কেসও। এই মুহূর্তে রাজ্যে অ্যাকটিভ করোনা রোগীর সংখ্যা ৮৩৩১। যার মধ্যে মাত্র ২৮৯ জন ভরতি হাসপাতালে। বাকিরা সকলেই হোম আইসোলেশনে রয়েছেন। সুস্থতার সংখ্যা মোট ২০, ৬৮, ৬৯৩। যার মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার কবল থেকে সুস্থ হয়েছেন ১৪০৯ জন। শতকরা হারে ৯৮.৫৮ শতাংশ।

[আরও পড়ুন: আত্মহত্যা করেছিলেন নির্যাতিতা! প্রমাণের অভাবে বেকসুর খালাস ধর্ষণে অভিযুক্ত সাংসদ]

এদিকে, মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে বড় হাতিয়ার টিকাকরণ। দেশজুড়ে তা চলছে দ্রুতগতিতে। বাংলাও ব্যতিক্রম নয়। এখানে একদিনে ২ লক্ষ ৮৪ হাজারের বেশি ডোজ পেয়েছেন রাজ্যবাসী। জোরকদমে চলছে বুস্টার ডোজ ও প্রিকশন ডোজ দেওয়ার কাজ।  

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে