BREAKING NEWS

১৪ মাঘ  ১৪২৮  শুক্রবার ২৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

শরীরজুড়ে অজস্র আঘাত, কোচবিহারে তৃণমূল কর্মীর রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: January 8, 2021 9:44 am|    Updated: January 8, 2021 9:44 am

Deadbody of TMC worker rescued from Cooch Behar with many injuries| Sangbad Pratidin

ছবি: প্রতীকী

বিক্রম রায়, কোচবিহার: ফের রাজনৈতিক হত্যাকাণ্ডে উত্তপ্ত কোচবিহার (Cooch Behar)। বৃহস্পতিবার রাতে খোলটা মরিচবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েক এলাকায় এক তৃণমূল (TMC) কর্মীর দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়াল। মৃত তৃণমূল কর্মীর নাম নধিরাম মণ্ডল। তিনি কোচবিহার উত্তর বিধানসভা কেন্দ্রের দক্ষিণ মরিচবাড়ি এলাকার  সক্রিয় তৃণমূল কর্মী বলে পরিচিত ছিলেন। তাঁর শরীরে প্রচুর আঘাতের চিহ্ন মিলেছে বলে হাসপাতাল সূত্রে খবর। কেউ বা কারা তাঁকে নৃশংসভাবে পিটিয়ে খুন করেছে বলে অভিযোগ।

পরিবার সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার মরিচবাড়ির বাসিন্দা তৃণমূল কর্মী নধিরাম মণ্ডল বাজারে গিয়েছিলেন। রাত ৯টার পর সেখান থেকে ফেরার পথে তাঁকে ঘিরে ধরে নৃশংসভাবে মারধর করে দুষ্কৃতীরা। বাড়ির অদূরে তাঁর রক্তাক্ত দেহ পড়ে থাকতে দেখেন প্রতিবেশীরা। এরপর তড়িঘড়ি নধিরামকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। তাঁর মাথায় এবং গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

[আরও পড়ুন: বিভেদ ভুলে সাহায্য, হালিশহরে নিহত বিজেপি বুথ সভাপতির স্ত্রীকে সরকারি চাকরি মুখ্যমন্ত্রীর]

কোচবিহারের তৃণমূল জেলা সভাপতি পার্থপ্রতিম রায় জানান, এই ঘটনার তদন্ত করে দোষীদের গ্রেপ্তারির বিষয়ে তিনি পুলিশের সঙ্গে কথা বলেছেন। কোনও রাজনৈতিক কারণে এই হত্যাকাণ্ড কিনা, তা এখনও স্পষ্ট না হলেও তৃণমূলের একাংশের অভিযোগ, বিজেপি (BJP) আশ্রিত দুষ্কৃতীরাই এই কাজ করেছে। নধিরাম এলাকায় সক্রিয় ও দক্ষ তৃণমূল কর্মী হিসেব পরিচিত ছিলেন। তাই তাঁকে এভাবে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়েছে। পুন্ডিবাড়ি থানার পুলিশ জানিয়েছে, নধিরামের দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে। বিধানসভা ভোটের আগে এ ধরনের হত্যায় ফের উত্তরবঙ্গের এই জেলায় রাজনৈতিক উত্তাপ বাড়ল বলে ধারণা সংশ্লিষ্ট মহলের।

[আরও পড়ুন: গুরুংয়ের প্রত্যাবর্তনে কোণঠাসা? রাজ্যের উপর চাপ বাড়িয়ে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি বিনয় তামাংয়ের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে