BREAKING NEWS

১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

মেলেনি রথযাত্রার অনুমতি, কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়েই ফেরালেন দিলীপ

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: December 7, 2018 9:07 pm|    Updated: December 7, 2018 9:07 pm

Dilip returned the party workers in Coach Bihar

রূপায়ণ গঙ্গোপাধ্যায়: আয়োজনে খামতি ছিল না৷ শেষমুহূর্ত পর্যন্ত চলেছিল প্রচার৷ কানায় কানায় পূর্ণ ছিল মাঠ৷ ছিল কর্মী-সমর্থকদের উৎসাহ৷ কিন্তু, মাঠ ভরিয়ে কর্মী-সমর্থকদের উপচে পড়া ভিড় জমলেও কোথায় নেতারা? দিল্লির নেতারাই বা কোথায়? কোথায় দলের সভাপতি? প্রায় ঘণ্টা তিনেক অপেক্ষার পরও কর্মী-সমর্থকদের ধৈর্যের বাধ ভাঙতেই ড্যামেজ কন্ট্রোলে নামেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ ফাঁকা মঞ্চে উঠে তাঁদের শান্ত করিয়ে ধন্যবাদজ্ঞাপন করেন তিনি৷ জানিয়ে দেন, যেহেতু কলকাতা হাই কোর্ট রথযাত্রার অনুমতি দেয়নি, ফলে অমিত শাহ কোচবিহারে আসতে পারছেন না৷

[ঝাড়গ্রামে পর্যটকদের সমস্যা মেটাতে স্থানীয় যুবকদের প্রশিক্ষণ]

দিলীপ ঘোষের এই মন্তব্যের পর চূড়ান্ত হতাশ হয়ে পড়েন দলীয় নেতা-কর্মীরা৷ নেতা-মন্ত্রীদের ভাষণ শুনতে এসে খালি হাতেই ফিরে যান তাঁরা৷ বাড়ি ফেরার পথে স্থানীয় নেতাদের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তুলতে শুরু করেন কর্মীরা৷ অমিত শাহ আসবে না জেনেও কেন তাঁদের ঘণ্টা তিনেক আটকে রাখা হল? তা নিয়েও কর্মী মহলে অসন্তোষ দানা বাঁধতে থাকে৷ পরিস্থিতি বেগতিক দেখে দলীয় কর্মী-সমর্থকদের মনোবল ফেরানোর চেষ্টা করেন দিলীপ ঘোষ৷ মঞ্চে উঠে কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে ফিরে যেতে বলেন তিনি৷

[সীমান্তে জাল ভোটার কার্ড তৈরির কারবারের পর্দাফাঁস, ধৃত যুবক]

রথযাত্রার উপর কলকাতা হাই কোর্টে স্থগিতাদেশ থাকা সত্ত্বেও এদিন মঞ্চে উঠে ভাষণ দেন দিলীপ ঘোষ৷ কিন্তু, মঞ্চ থেকে নেমে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রাজ্য বিজেপি সভাপতি বলেন, ‘‘এটা সভা নয়৷ দূর থেকে যেসব মানুষ এসেছিলেন তাঁদের ধন্যবাদ জানাতে এসেছিলাম। যেহেতু আমি সভা ডেকেছিলাম, তাই কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে ফিরিয়ে দিয়েছি। যতক্ষণ না আদালতের অনুমতি মিলছে, ততক্ষণ পর্যন্ত রথযাত্রা স্থগিত রাখা হয়েছে৷ যেদিন, কোর্ট অনুমতি দেবে সেদিন যাত্রা শুরু হবে৷’’ অনুমতি পেলে অমিত শাহ তিনটি যাত্রার সূচনা করবেন বলে জানান দিলীপ ঘোষ৷ দিলীপের অভিযোগ, ‘‘প্রশাসন জ্যামার বসিয়েছে। আমরা সভাস্থল থেকে কারও সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছি না।’’ রবিবার নামখানা থেকে রথযাত্রা শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু আদালতের অনুমতি না আসায় সেটাও অনিশ্চিত৷ নামখানার সভা আদৌ হবে কি না, তাও নিশ্চিত৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে