Advertisement
Advertisement
Mamata Banerjee

‘বিজেপি ধ্বংস চায়, ওদের দিকে দেখার দরকার নেই’, নবান্ন অভিযানের দিনই বার্তা মমতার

'প্রচারের আলোয় আসার জন্য গেরুয়া শিবির এসব করে', কটাক্ষ মমতার।

Don't pay attention to BJP Rally, says CM Mamata Banerjee | Sangbad Pratidin
Published by: Paramita Paul
  • Posted:September 13, 2022 5:17 pm
  • Updated:September 13, 2022 5:58 pm

কিংশুক প্রামাণিক: বিজেপির (BJP) নবান্ন অভিযানকে গুরুত্ব দিতে নারাজ তৃণমূল সভানেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রচারের আলোয় আসার জন্য গেরুয়া শিবির এসব করে। গুরুত্ব দেওয়ার দরকার নেই। মঙ্গলবার খড়গপুরের বললেন মমতা (Mamata Banerjee)। পাশাপাশি গণআন্দোলন জোরদার করারও বার্তা দেন তিনি।

এদিন খড়গপুরে ছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখান থেকেই বিজেপির নবান্ন অভিযান নিয়ে প্রতিক্রিয়া দেন। বলেন,”বিজেপির নবান্ন অভিযানে লোক হয়নি। লাইম লাইটে আসার জন্য ওরা এগুলো করে। ওদের বেশি গুরুত্ব দেওয়ার দরকার নেই।” তিনি আরও বলেন, “বিজেপি ধ্বংস চায়। তাঁদের দিকে তাকানোর দরকার নয়। নিজেদের কাজ করুন। গণআন্দোলনে জোর দিন।”

Advertisement

[আরও পড়ুন: বিজেপির নবান্ন অভিযান LIVE: শুভেন্দুর ‘গ্রেপ্তারি’র প্রতিবাদে হাই কোর্টে মামলা, সাঁতরাগাছি স্টেশনের বাইরে আগুন]

এদিকে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর আটক নিয়েও তীব্র কটাক্ষ করেছে তৃণমূল। শুভেন্দুর আটকের ভিডিও পোস্ট করে তৃণমূল লিখেছে, “৫৬ ইঞ্চির চওড়া ছাতির মডেল ধরা পড়ে গিয়েছে।” সেই ভিডিও টুইট করে আবার তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় তিনটি হাসির ইমোজি পোস্ট করেন।

Advertisement

 

নিয়োগ দুর্নীতি-সহ একাধিক ইস্যুতে মঙ্গলবার নবান্ন অভিযানের ডাক দিয়েছিল বিজেপি। এদিন সকাল থেকেই শহরের বিভিন্নপ্রান্ত থেকে একাধিক মিছিল রওনা দিয়েছিল। তাঁদের আটকাতে কোমর বেঁধে নেমেছিল পুলিশও। জায়গায় জায়গায় ব্যারিকেড বেঁধেছিল তারা। প্রস্তুত ছিল জলকামান, কাঁদানে গ্যাসও। নবান্ন পৌঁছনোর আগেই সাঁতরাগাছি, হাওড়া ময়দান চত্বরে বিজেপির মিছিল আটকে দেওয়া হয়।

[আরও পড়ুন: বিজেপির কর্মসূচিতে ব্যাপক যানজট, অসুস্থ যুবককে হেঁটে পেরতে হল বিদ্যাসাগর সেতু!]

নবান্ন অভিযানে একে অপরকে টেক্কা দেওয়ার চেষ্টা করেও শেষপর্যন্ত নজর কাড়তে ব্যর্থ শুভেন্দু-দিলীপ-সুকান্তরা। বরং শেষবেলায় ম্যাচের রাশ হাতে নেয় বিজেপির সাধারণ কর্মী-সমর্থকরা। ওপেনাররা ব্যর্থ হলেও টেল এন্ডাররা টানল ম্যাচ। সাঁতরাগাছি চত্বরের দখল নিলেন তাঁরা। নবান্ন পৌঁছতে না পারলেও সাঁতরাগাছি-হাওড়া ময়দান-এমজি রোড চত্বর দাপিয়ে বেড়াল গেরুয়া বাহিনী। তাঁদের সামলাতে অতিরিক্ত পুলিশ আনতে বাধ্য হয় কলকাতা পুলিশ। 

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ