২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  বুধবার ১৭ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মুখ্যমন্ত্রীর নামে ভুয়ো চিঠি পাঠিয়ে রেশন দোকান বন্ধের নির্দেশ! শোরগোল শ্যামনগরে

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: July 5, 2022 3:49 pm|    Updated: July 5, 2022 3:49 pm

Fake letter by the name of Mamata Banerjee to stop Shyamnagar ration shop | Sangbad Pratidin

অর্ণব দাস, বারাকপুর: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) নাম করে ভুয়ো চিঠি পাঠিয়ে রেশন দোকান বন্ধের নির্দেশ। ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়াল উত্তর ২৪ পরগনার শ্যামনগর। কারণ নিয়ে তৈরি হয়েছে ধোঁয়াশা।

জানা গিয়েছে, বারাকপুর এলাকার রেশন দোকানগুলির লাইসেন্স দেওয়া হয় যে অফিস থেকে সম্প্রতি সেখানে একটি চিঠি যায়। মুখ্যমন্ত্রীর প্যাডে লেখা সেই চিঠিতে শ্যামনগরের দেবাশিস ঘোষ ও নিখিল বন্দ্যোপাধ্যায়ের রেশন দোকান জরুরী ভিত্তিতে সাসপেন্ড করার নির্দেশ দেওয়া হয়। সেই চিঠি পেয়ে ভিজিলেন্স ডিপার্টমেন্টের আধিকারিকদের তরফে রেশন দোকানে যোগাযোগ করা হয়। এই ঘটনায় স্বাভাবিকভাবেই ঘুম ওড়ে রেশন ডিলারদের।

[আরও পড়ুন: ‘ফুলপ্যান্ট পরে পরীক্ষা দিতে গেলে যদি পাশ না করি!’, স্রেফ আশঙ্কায় বিষ খেল ছাত্র]

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে শোরগোল পড়ে যায় এলাকায়। যদিও পরবর্তীকালে প্রকাশ্যে আসে গোটা বিষয়টি। সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, মুখ্যমন্ত্রীর প্যাডে পাঠানো ওই চিঠি ভুয়ো। শ্যামনগর পোস্ট অফিস থেকে পাঠানো হয়েছে ওই চিঠিটি। এই প্রসঙ্গে স্থানীয় পুরপিতা সুখেশ বিশ্বাস জানান, “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্যাডে তাঁর সই নকল করে কেউ বা কারা রেশন দোকান মালিককে ভয় দেখানোর চেষ্টা করছে। কারণ নবান্নর চিঠি পাঠানো হয়েছে শ্যামনগর পোস্ট অফিস থেকে, যেটা কোনওভাবেই সম্ভব নয়। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্যাড ও সই নকল করা গুরুতর অপরাধ। ঘটনার সমস্ত বিষয়টির তদন্ত করবে পুলিশ প্রশাসন।” এ বিষয়ে রেশন ডিলারের তরফে জানানো হয়েছে, ভুয়ো চিঠি পাঠিয়ে তাঁদের ফাঁসানো হয়েছে। 

কিন্তু কী কারণে এহেন ঘটনা? প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে, ব্যক্তিগত শত্রুতার জেরেই এই ঘটনা। যদিও বিষয়টা নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে। খতিয়ে দেখছে পুলিশ। 

[আরও পড়ুন: একের পর এক সিনেমা ফ্লপ, কেরিয়ার বাঁচাতে রাজনীতিতে পা রাখছেন অক্ষয় কুমার?]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে