১৭ চৈত্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ৩১ মার্চ ২০২০ 

Advertisement

মাধ্যমিকের প্রথমদিনেই পাঁচিলে উঠে দেদার ‘টুকলি সাপ্লাই’! প্রশ্নের মুখে পর্ষদ

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: February 18, 2020 7:02 pm|    Updated: February 18, 2020 7:03 pm

An Images

ফাইল ছবি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পুলিশি পাহারা সত্ত্বেও মাধ্যমিকের প্রথমদিনেই চলল দেদার টুকলি সাপ্লাই। পরীক্ষার্থীদের হাতে উত্তর পৌঁছে দিতে প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে পাঁচিলে উঠে পড়তেও পিছপা হলেন না অনেকেই। সেই ছবি ধরা পড়ল ক্যামেরায়। তবে সব মিলিয়ে মোটের উপর নির্বিঘ্নেই শেষ হল মাধ্যমিকের প্রথম ভাষার পরীক্ষা।

২০১৯ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষায় পর পর সাতদিনেই প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনা ঘটেছে। পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই হোয়াটসআ্যপ গ্রুপে ছড়িয়ে পড়েছিল প্রশ্নপত্র। হাজার চেষ্টা করেও তা রুখতে পারেনি মাধ্যমিক শিক্ষা পর্ষদ। লাগাতার একই ঘটনা অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছিল পর্ষদকে। প্রশ্নফাঁসের সঙ্গে টুকলির দৌরাত্ম্যতো ছিলই। তাই চলতি বছরের মাধ্যমিকে নিরাপত্তায় একফোঁটাও ফাঁক রাখতে নারাজ ছিল পর্ষদ। সেই কারণেই বাড়তি নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়েছিল। পড়ুয়াদের পাশাপাশি পরিদর্শকদেরও মোবাইল নিয়ে কেন্দ্রে প্রবেশের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছিল। কিন্তু পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই মালদহের একাধিক পরীক্ষা কেন্দ্র নজরে পড়ল টুকলির দৌরাত্ম্য। ভাইরাল হয়েছে একটি ভিডিও। মালদহের রাইমোহন মোহনীমোহন বিদ্যালয়ের বাইরের সেই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, এক যুবক স্কুলের পাঁচিল থেকে কার্নিশে উঠে আপ্রাণ চেষ্টা করছেন কাগজের টুকরো পৌঁছে দেওয়ার।

[আরও পড়ুন:কাটমানি নিয়ে ফরাক্কার কাজ হওয়ার ফলেই দুর্ঘটনা, বিজেপির বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মৌসম নুর ]

শুধু মালদহের স্কুলই নয়। জেলার একাধিক স্কুলে পুলিশি নিরাপত্তা সত্ত্বেও টোকাটুকির ঘটনা ঘটেছে। তবে অধিকাংশ কেন্দ্রেই শান্তিপূর্ণভাবেই শেষ হয়ে মাধ্যমিকের প্রথম ভাষার পরীক্ষা। বাকি পরীক্ষাগুলিও সুস্থভাবে পরীক্ষা পরিচালনা করতে তৎপর পুলিশ-প্রশাসন। 

[আরও পড়ুন: করোনা আতঙ্ক, উরশে যোগ দিতে আসা বাংলাদেশিদের স্বাস্থ্যপরীক্ষা হল মেদিনীপুর স্টেশনে ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement