BREAKING NEWS

১২ মাঘ  ১৪২৮  বুধবার ২৬ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

‘স্বামী-শাশুড়ির মদতে ভাসুর আমাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে’, বিস্ফোরক টিকটকখ্যাত গৃহবধূ

Published by: Sayani Sen |    Posted: January 17, 2020 3:36 pm|    Updated: January 17, 2020 3:36 pm

Hooghly's Tiktok woman alleges rape bid by brother-in-law

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এবার ভাসুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে সুর চড়ালেন টিকটকখ্যাত হুগলির গৃহবধূ। সম্প্রতি এক ভিডিও বার্তায় তাঁর স্বামী-সহ শ্বশুরবাড়ির লোকজনের বিরুদ্ধে অত্যাচারের অভিযোগে সরব হলেন তিনি। পরিজনেরা তাঁর প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে বলেও অভিযোগ। অসহায় অবস্থায় সরকারি সাহায্যের দাবি জানিয়েছেন ওই গৃহবধূ। 

দিন যত যাচ্ছিল ততই জনপ্রিয়তা বাড়ছিল হুগলির চুঁচুড়ার ভগবতীডাঙার বাসিন্দা ওই গৃহবধূর। টিকটক ভিডিও শুটের জন্য ভিনরাজ্যেও বহুবার যেতেন ওই গৃহবধূ। কখনও সঙ্গে থাকতেন স্বামী আবার কখনও তিনি একাই যেতেন। এভাবে জেসমিন নামে টিকটকে অ্যাকাউন্ট খুলে দিব্যি আয়ও করছিলেন। সেই সূত্রেই এক যুবকের সঙ্গে পরিচয় তৈরি হয় গৃহবধূর। পরিবারের দাবি, তাঁর মাধ্যমে দিল্লিতে ব়্যাম্প শোয়ে অংশ নেওয়ার সুযোগ পান। সেই অনুষ্ঠানে যোগ দিতে গত ৩১ ডিসেম্বর দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা হন ওই গৃহবধূ। তারপর থেকে তিনি নিখোঁজ হয়ে যান বলেই দাবি পরিবারের। দশ-বারোদিন তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেননি কেউই। স্ত্রীর কোনও খোঁজ না পেয়ে পুলিশের দ্বারস্থ হন জেসমিনের স্বামী।

[আরও পড়ুন: বক্সার জঙ্গলে মিলল জোড়া ব্ল্যাক প্যান্থারের দেখা, ক্যামেরাবন্দি বিলুপ্তপ্রায় প্রাণী]

জেসমিন আদৌ নিখোঁজ হয়ে গিয়েছেন কি না, তা নিয়ে ধন্দ তৈরি হয়। প্রতিবেশীদের দাবি, এর আগেও একাধিকবার বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয়ে যান ওই গৃহবধূ। বারবারই পুলিশের দ্বারস্থ হন স্বামী। তারপরই আবার খোঁজ মেলে জেসমিনের। এবারেও তাই হবে বলেই ভেবেছিলেন গৃহবধূর প্রতিবেশীরা। বাস্তবে ঘটলও তাই। পুলিশের দ্বারস্থ হওয়ার পরই ভিডিও কল করেন জেসমিন। টিকটকার গৃহবধূ জানান, স্বামীর অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে দিল্লি চলে যান। সেখানেই আপাতত ভাল আছেন। আবার একটি ভিডিও বার্তা প্রকাশ করেন তরুণী। অভিযোগ, ভাসুর তাঁকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। স্বামী-সহ শ্বশুরবাড়ির লোকজনের মদতে ঘটনা ঘটে বলেই দাবি তাঁর। অত্যাচার থেকে বাঁচতেই শ্বশুরবাড়ি থেকে পালিয়ে দিল্লিতে চলে যান তিনি। অপহরণ নয় নিজের ইচ্ছায় দিল্লিতে চলে গিয়েছেন দাবি জেসমিনের। শ্বশুরবাড়ির লোকজন তাঁকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে বলেও অভিযোগ। সমস্যা থেকে বাঁচতে সরকারি সাহায্যের দাবি জানিয়েছেন ওই গৃহবধূ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে