Advertisement
Advertisement

Breaking News

Kunal Ghosh

খেজুরিতে আক্রান্ত কর্মীদের পাশে থাকার বার্তা, বিজেপির হামলাকারীদের সরকারি সুবিধা নয়, হুঁশিয়ারি কুণালের!

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রতিনিধিরা সবসময় কর্মীদের পাশে আছেন বলে জানিয়েছেন কুণাল।

Kunal Ghosh's public meeting in Khajuri Purba Medinipure
Published by: Subhankar Patra
  • Posted:June 14, 2024 9:05 pm
  • Updated:June 15, 2024 12:20 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আক্রান্ত তৃণমূল কর্মীদের পাশে দাঁড়িয়ে খেজুরির সভা থেকে বিজেপিকে একহাত নিলেন কুণাল ঘোষ। তৃণমূল কর্মীদের মারধর করা হলে দল হাতগুটিয়ে বসে থাকবে না জানিয়ে দিলেন তিনি। একই সঙ্গে তাঁর পরামর্শ, যে সকল বিজেপি নেতা কর্মীরা দলের কর্মীদের মারধর করেছেন, তাদের দুটি তালিকা বানিয়ে একটি পুলিশকে দেওয়া হোক। অপর একটি তালিকা বিধায়ক শিউলি সাহাদের কাছে থাক। এর পরেই কুণাল বলেন, “যদি লাগাম ছাড়া অসভ্যতা হয় তাহলে এই রইল লিস্ট, এই ঠিকানাগুলিতে যেন সরকারের কোনও প্রকল্প গিয়ে না পৌঁছয়।” কুণালের এই মন্তব্য ঘিরেই জল্পনা ছড়িয়েছে।

লোকসভা নির্বাচনের পর পূর্ব মেদিনীপুরের খেজুরিতে বিজেপির হাতে তৃণমূল কর্মীরা আক্রান্ত হচ্ছেন বলে খবর আসে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) কাছে। তার পরেই তিনি জানান,  একসময়ে পূ্র্ব মেদিনীপুরের (Purba Medinipur) নন্দীগ্রামের দায়িত্বে থাকা কুণালের (Kunal Ghosh) নেতৃত্বে শিউলি সাহা এবং মন্ত্রী বিরবাহা হাঁসদা ও উত্তম বারিকদের একটি প্রতিনিধি দল শুক্রবার যাবে খেজুরিতে। সেই মতো আজ খেজুরিতে যান কুণালরা।

Advertisement

Advertisement

[আরও পড়ুন: উপনির্বাচনেও বাম-কংগ্রেস জোট, হাত শিবিরকে ১ আসন ছেড়ে প্রার্থী ঘোষণা সেলিমদের]

কর্মীদের সঙ্গে কথা বলার পরে একটি সভাও করেন তাঁরা। সেখানেই বিস্ফোরক কুণাল। তিনি বলেন, ” যে বিজেপির কর্মীরা দলের কর্মীদের মেরেছে তাঁদের একটা তালিকা তৈরি করুন। একটা দিন পুলিশকে। আর একটি দিন শিউলিদিদের। আমরা কোনও প্রতিহিংসামূলক ব্যবস্থা চাই না। কিন্তু লিস্ট দুটো জায়গায় যাবে।” তিনি আরও বলেন, “বাংলার বুকে দাঁড়িয়ে খেজুরিতে অত্যাচার চালিয়ে যাবে দিনের পর দিন। আমরা শান্তি রক্ষার দায়ে সরকারে থাকার দ্বায়বদ্ধাতায় তা সহ্য করব এটা কী করে হবে?” এর পরেই কর্মীদের সতর্ক করে তাঁর বার্তা, “কোনও প্ররোচনায় পা দেবেন না। যাতে করে ওরা (বিজেপি) কোনও মিথ্যা মামলায় নাম জড়ানোর সুযোগ পায়। পুলিশ প্রশাসনকে সাহায্য করুন।” এছাড়াও কর্মীদের আশ্বাস দিয়ে তিনি জানান, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রতিনিধিরা সবসময় তাঁদের পাশে আছেন।

পূর্ব মেদিনীপুরের কাঁথি লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত খেজুরি। লোকসভা ভোটে এই কেন্দ্রে বিজেপির কাছে হেরেছে তৃণমূল। বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর ভাই সৌমেন্দু অধিকারীর কাছে হেরে গিয়েছেন তৃণমূলের উত্তম বারিক। তার পর থেকে বিভিন্ন এলাকায় বিজেপির হাতে তৃণমূলের আক্রান্ত হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসছিল। তাঁদের পাশে থাকার বার্তা দিয়েই তৃণমূলের এই সভা।

[আরও পড়ুন: ‘চুপ করে বসে থাকব না’, ভোট পরবর্তী অশান্তি নিয়ে রাজ্যের রিপোর্ট না পেয়ে ক্ষুব্ধ রাজ্যপাল]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ