BREAKING NEWS

১২ মাঘ  ১৪২৮  বুধবার ২৬ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

রাজ্যে লোকাল ট্রেন চালুর শুরুতেই ধাক্কা, একাধিক স্টেশনে অশান্তি, সিগন্যালিং সিস্টেমে সমস্যা

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: November 1, 2021 11:34 am|    Updated: November 1, 2021 1:30 pm

Local trains in Bengal resume services amidst so many challenges | Sangbad Pratidin

ফাইল ছবি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কোভিডবিধি মেনে সরকারি নির্দেশমতো ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে লোকাল ট্রেন (Local Trains) সুষ্ঠুভাবে চালানো রেল কর্তৃপক্ষের কাছে বড়সড় চ্যালেঞ্জ ছিল। প্রায় ৬ মাস পর রাজ্যে লোকাল ট্রেন চালু হওয়ার পর সোমবার, সপ্তাহের প্রথম কর্মব্যস্ত দিনে দেখা গেল, সেই চ্যালেঞ্জে কার্যত হার মানতে হচ্ছে রেলকে। প্রথম দিনই সিগন্যালিং সিস্টেমে (Signaling system) সমস্যা, যাত্রীবিক্ষোভের মতো একাধিক বিষয় সামাল দিতে হিমশিম খাচ্ছেন রেলকর্মী, আধিকারিকরা। এদিকে, ভিড় নিয়ন্ত্রণে রেল পুলিশ বিশেষ তৎপর নয় বলে অভিযোগ উঠছে সাধারণ যাত্রীদের তরফে।

সকাল থেকে শিয়ালদহ (Sealdah)-হাওড়া (Howrah) লাইনে ট্রেন চলাচল মোটের উপর স্বাভাবিক ছিল। কোনও কোনও স্টেশনে যাত্রীদের ভিড়ই বুঝিয়ে দিচ্ছিল, ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে ট্রেন চলাচল কার্যত অসম্ভব। তবে সমস্যা মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে ব্যান্ডেল-কাটোয়া লাইনে রেল অবরোধের পর। জানা গিয়েছে, ইসলামপাড়া হল্ট স্টেশনে একটি ট্রেন না দাঁড়িয়ে চলে যায়। অফিসের ব্যস্ত সময় গ্যালপিং ট্রেন দেওয়ায় ব্যাপক ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন যাত্রীরা। রেললাইনে নেমে অবরোধ করেন তাঁরা। মহিলা যাত্রীরাও শামিল হন তাতে। তাঁদের স্পষ্ট বক্তব্য, এতদিন পর লোকাল ট্রেন চালু হওয়ায় যাতায়াতের সুবিধার কথা ভেবে স্বস্তি পেয়েছিলেন। কিন্তু সব স্টেশনে ট্রেন না দাঁড়ালে সমস্যা বাড়বেই। অবরোধের জেরে বেশ কিছুক্ষণ ট্রেন চলাচল ব্যাহত হয় ব্যান্ডেল-কাটোয়া লাইনে। পরে আরপিএফ (RPF) গিয়ে অবরোধ হঠিয়ে দেয়।

[আরও পড়ুন: একবার চার্জ দিলেই চলবে ৩০ কিমি! ব্যাটারিচালিত সাইকেল তৈরি করে তাক লাগালেন সিউড়ির শিক্ষক]

সমস্যা দেখা দেয় পূর্ব বর্ধমানের কালনাতেও। লোকাল ট্রেন চালু হলেও সোমবার সকাল ৯ টা থেকে কালনা, ধাত্রীগ্রাম, সমুদ্রগড় স্টেশনে দু’ঘন্টা ধরে স্তব্ধ ছিল ট্রেন চলাচল। ফলে অসুবিধার সম্মুখীন যাত্রীরা। স্টেশনগুলিতে তুমুল ভিড়। কারণ হিসাবে কালনা রেল সূত্রে জানা যায়, হুগলির বাঁশবেড়িয়া ও ত্রিবেণীর মাঝে দীর্ঘক্ষণ রেল অবরোধের জেরে ব্যাহত হয়েছে রেল চলাচল।

[আরও পড়ুন: হুগলির বাজারে রমরমিয়ে বিক্রি হচ্ছে ‘ডক্টর চকোলেট’, ব্যাপারটা কী?]

এদিকে, শিয়ালদহ-বনগাঁ শাখার মধ্যমগ্রাম স্টেশনে সিগন্যাল প্যানেলে সমস্যা দেখা দেয়। ইন্টারলকিং সিস্টেম (Interlocking system) ঠিকমতো কাজ করছিল না। ফলে মধ্যমগ্রামের আগে-পরের স্টেশনগুলিতে ট্রেন থমকে যায়। দ্রুত সিগন্যালিং সিস্টেম মেরামত করে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক করতে তৎপর হন রেলকর্মীরা। শিয়ালদহ, হাওড়ার মতো অন্যান্য স্টেশনেও চেনা ভিড়ের ছবি ফিরে এসেছে। তবে অধিকাংশ যাত্রীর মুখে মাস্ক নেই। এই ছবি চিন্তা বাড়িয়েছে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে