১৪ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ১ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

লোকসভা ভোট: শেষবেলায় ফের লকেটকে ঘিরে বিক্ষোভ, ধুন্ধুমার চন্দননগরে

Published by: Tanumoy Ghosal |    Posted: May 6, 2019 8:35 am|    Updated: August 9, 2021 5:09 pm

Loksabha Election 2019 Live Updates from fifth Phase

রাজ্যে পঞ্চম দফায় লোকসভা ভোটেও অশান্তি। অশান্তির আবহেই ভোট মিটল বনগাঁ, বারাকপুর, হাওড়া, উলুবেড়িয়া, শ্রীরামপুর, হুগলি ও আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রে।

বিকেল ৫টা ৩৮: পঞ্চম দফায় লোকসভা  ভোটের শেষবেলায় ফের উত্তেজনা ছড়াল হুগলিতে। চন্দননগরে বিজেপি ও তৃণমূল সমর্থকদের খণ্ডযুদ্ধ। বুথের বাইরে বিজেপি প্রার্থী লকেট চট্টোপাধ্যায়কে হেনস্তা, বিজেপি জেলা সভাপতিকে মারধর।

বিকেল ৫টা ১৯: বিকেল ৫টা পর্যন্ত বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৭৬.১৮ শতাংশ। একই সময়ে বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রে ভোটদানের হার ৭১.২৮ শতাংশ। বিকেল ৫টা পর্যন্ত হাওড়ায় ভোট পড়েছে ৬৭.৫৯ শতাংশ, উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রে ৭৭.৫৭ শতাংশ। একই সময়ে হুগলির শ্রীরামপুর লোকসভা কেন্দ্র, হুগলি লোকসভা কেন্দ্র ও আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে যথাক্রমে ৭৩.৩১ শতাংশ, ৭২.১৪ শতাংশ ও ৭৫.৭৩ শতাংশ।

বিকেল ৪টা ৩৪: বিকেল ৪টা পর্যন্ত বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৬৪.১৭ শতাংশ। একই সময়ে বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রে ভোটদানের হার ৬১.৬২ শতাংশ। বিকেল ৪টা পর্যন্ত হাওড়ায় ভোট পড়েছে ৫৬.৯০ শতাংশ, উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রে ৬৭.২০ শতাংশ। একই সময়ে হুগলির শ্রীরামপুর লোকসভা কেন্দ্র, হুগলি লোকসভা কেন্দ্র ও আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে যথাক্রমে ৬১.৪৬ শতাংশ, ৬৪.২১ শতাংশ ও ৬৬.২০ শতাংশ।

দুপুর ৩টে ৫৪:  দুপুর ৩টা পর্যন্ত বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৬২.২৪ শতাংশ। একই সময়ে বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রে ভোটদানের হার ৬১.৬২ শতাংশ। দুপুর ৩টা পর্যন্ত হাওড়ায় ভোট পড়েছে ৫৬.৯০ শতাংশ, উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রে ৬৭.২০ শতাংশ। একই সময়ে হুগলির শ্রীরামপুর লোকসভা কেন্দ্র, হুগলি লোকসভা কেন্দ্র ও আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে যথাক্রমে ৬১.৪৬ শতাংশ, ৬৪.২১ শতাংশ ও ৬৬.২০ শতাংশ।

দুপুর ২টো ৩৮: উলুবেড়িয়া লোকসভা এলাকায় কেন্দ্রীয় বাহিনীর ‘মদ্যপ’ জওয়ানদের তাণ্ডব।  শ্রীরামপুর নিউ প্রাইমারি স্কুলে দুটি বুথে ভোট চলাকালীন তৃণমূল কংগ্রেসের এজেন্টদের বের করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। 

Uluberia TMC Agent Attack

দুপুর ২টো ২২: ভোট চলাকালীন বনগাঁর হিংলি এলাকায় ব্যাপক বোমাবাজি। জখম এক গ্রামবাসী ও এক পুলিশকর্মী। বিজেপির বিরুদ্ধে বোমাবাজির অভিযোগে পথ অবরোধ তৃণমূল কংগ্রেসের।

Hingli Clash

দুপুর ২টা ১১:  দুপুর ২টা পর্যন্ত বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৪৯.৪২ শতাংশ। একই সময়ে বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রে ভোটদানের হার ৪৬.২৬ শতাংশ। দুপুর ২টা পর্যন্ত হাওড়ায় ভোট পড়েছে ৪৫.৯৭ শতাংশ, উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রে ৫৪.৩৯ শতাংশ। একই সময়ে হুগলির শ্রীরামপুর লোকসভা কেন্দ্র, হুগলি লোকসভা কেন্দ্র ও আরামবাগ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট পড়েছে যথাক্রমে ৫২.৯৯ শতাংশ, ৫১.৬০ শতাংশ ও ৫৩.৮৪ শতাংশ।

দুপুর ২টো: হুগলির ধনেখালিতে আক্রান্ত বিজেপি প্রার্থী লকেট চট্টোপাধ্যায়। তাঁর গাড়িতে ভাঙচুরের অভিযোগ। মইদিপুরের একটি বুথে বন্ধ ভোটগ্রহণ। বিজেপি প্রার্থীকে গ্রেপ্তারের দাবি স্থানীয়দের।

Locket Chatterjee Car ransacked

দুপুর ১টা ৩০: হাওড়ায় আক্রান্ত তৃণমূল প্রার্থী প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়। বালিটিকুরী মুক্তরাম স্কুলের বুথে তাঁকে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা মারধর করেন বলে অভিযোগ। থানায় অভিযোগ দায়ের।

Prasun Banerjee attack

দুপুর ১টা: দমদম লোকসভা কেন্দ্রের দত্তপুকুরের কাসেমপুরে উত্তেজনা। ছাপ্পাভোটে বাধা দেওয়ায় মারধরের অভিযোগ। কেন্দ্রীয় বাহিনীর ভূমিকায় ক্ষোভ স্থানীয়দের।

দুপুরে সাড়ে ১২টা: হাওড়ার বেলুড় বয়েজ স্কুলে বুথের ভিতরে তৃণমূল ও বিজেপি এজেন্টদের হাতাহাতি। একে অপরের বিরুদ্ধে হামলার অভিযোগ তুলেছে দু’পক্ষই।

দুপুর ১২টা ১৯:  ভোটগ্রহণকে কেন্দ্র করে সকাল থেকে উত্তপ্ত বারাকপুর। তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে ছাপ্পাভোটের অভিযোগ তুলে পুনর্নির্বাচনের দাবি তুলল বিজেপি।

সকাল ১১টা ৩৫:  বনগাঁ লোকসভা বাগদা এলাকার একটি  বুথে মক পোলিংয়ের ৫৫টি ভোট ডিলিট না করে প্রিসাইডিং অফিসার ভোটগ্রহণ শুরু করেন বলে অভিযোগ। এলাকায় উত্তেজনা।

সকাল ১১টা০৭: তারকেশ্বরের একটি বুথে প্রিসাইডিং অফিসারের সামনে এক বৃদ্ধার হয়ে ভোট দিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের এক যুবনেতা মহারাজ নাগ। প্রিসাইডিং অফিসারকে সাসপেন্ড করল নির্বাচন কমিশন।

সকাল ১০টা ৪৫: উলুবেড়িয়ার জোয়াডরগোড়িতে বুথের ১০০ মিটারের মধ্যে একটি ক্লাবের তৃণমূল কংগ্রেসের প্রচার পুস্তিকা। ক্লাবে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা ভাঙচুর চালিয়েছেন বলে অভিযোগ। ঘটনাস্থলে উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী সাজদা আহমেদ।

সকাল ১০টা্ ৩৫: নৈহাটির বিজয়নগর গার্লস হাইস্কুলের বুথে বিক্ষোভের মুখে বারাকপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিং। উঠল ‘গো-ব্যাক’ স্লোগান। জগদ্দলেও বিজেপি প্রার্থীকে ঘিরে বিক্ষোভ।

সকাল ১০টা ২৭:  উলুবেড়িয়ার যদুরবেড়িয়া বালিকা বিদ্যালয়ে ভোট দিলেন তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী সাজদা আহমেদ।

SajdaAhmedVotes

সকাল ১০টা ৫: হাওড়ার পাঁচলার একাধিক বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা বিজেপিকে ভোট দিতে বলছেন। অভিযোগ মন্ত্রী অরূপ রায়ের।

সকাল ১০টা:  হুগলির ধনেখালিতে তৃণমূল কংগ্রেসের  বিরুদ্ধে বুথজ্যামের অভিযোগ। ১৭৮ নম্বর বুথে বিজেপি প্রার্থী লকেট চট্টোপাধ্যায়কে ঢুকতে বাধা। তৃণমূল কর্মীদের সঙ্গে বচসা লকেটের।

সকাল ৯টা ৫৩:  শ্রীরামপুরে ভোটারদের প্রভাবিত করার অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে। রায়ল্যান্ড এলাকায় বুথের বাইরে ভোটারদের ঠাণ্ডা পানীয় খাওয়ানো হচ্ছে।

TMCColdDrinks

সকাল ৯টা ২৫: বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের গাইঘাটার ফুলসারা এলাকায় বিজেপির বাইকবাহিনীর তাণ্ডব। ‘জয় শ্রীরাম’  বলতে রাজি না হওয়ায় গ্রামবাসীদের মারধর ও মহিলা্দের শ্লীলতাহানির অভিযোগ। উত্তেজনা ১২৮ নম্বর নম্বর বুথ এলাকায়।

সকাল ৯টা: দলের উত্তরীয় পরে ভোটদান। বিতর্কে বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী শান্তনু ঠাকুর। বিধিভঙ্গের অভিযোগ।

সকাল ৮টা ৩২: গাইগাটার ঠাকুরনগর প্রাইমারি স্কুলের বুথে ভোট দিলেন বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী মমতাবালা ঠাকুর ও বিজেপি প্রার্থী শান্তনু ঠাকুর।

ShantaniMamataBalaVotesNew_

সকাল ৮টা ১৬: ভোটগ্রহণ  শুরু হতেই উত্তেজনা বারাকপুরের মোহনপুরে। তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে ভোটদানে বাধা ও হুমকি দেওয়ার অভিযোগ। পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধস্তি বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিংয়ের। বিজেপি প্রার্থীকে মার। 

Arjun Singh

সকাল ৮টা ০৪: হুগলির লোকসভা কেন্দ্রে বলাগড়ের বারুইপাড়া বুথে নেই কেন্দ্রীয় বাহিনী। বুথে বিজেপি এজেন্টকে বসতে না দেওয়ার অভিযোগ।

সকাল ৭টা ৩১:  বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের চৌবেরিয়া এলাকায় বেশ কয়েকটি বুথে বিজেপির এজেন্টদের বসতে দেওয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ। অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে। এলাকায় উত্তেজনা।

সকাল ৭টা ২০টা: বনগাঁ শহরের একটি বুথ থেকে বিজেপি এজেন্ট মেরে বের করে দেওয়ার অভিযোগ। ৯ নম্বর ওয়ার্ডের ঠাকুরপল্লী প্রাইমারি স্কুলের বুথে উত্তেজনা।

সকাল ৭টা: সকালে ভোটগ্রহণ শুরু হতেই বিপত্তি। একাধিক জায়গায় ইভিএম বিকল। ভোট শুরু হতে বিলম্ব। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে