৭  আশ্বিন  ১৪২৯  রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পার্কিং নিয়ে বচসা, যুবককে ধাক্কা মেরে বনেটে তুলেই ছুটল পুলিশের গাড়ি! তারপর…

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 19, 2022 8:11 pm|    Updated: June 19, 2022 8:11 pm

Man argued with police on parking, police van crashed with the man | Sangbad Pratidin

অভিযুক্ত পুলিশ কর্মী।

অর্ণব দাস, বারাকপুর: পার্কিং নিয়ে বচসা। গাড়ি থামাতে বললে সজোরে ধাক্কা যুবককে। এরপর পুলিশের স্টিকার লাগানো ওই চারচাকার বনেটে ঝুলন্ত অবস্থায় যুবককে নিয়ে প্রায় এক কিলোমিটার ছুটল গাড়িটি! চালকের আসনে বসে কলকাতা পুলিশের এসআই (SI)। ঘটনাকে কেন্দ্র করে তোলপাড় শুরু হয়েছে। অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

স্থানীয় এবং পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, শুক্রবার রাতে সোদপুর (Sodpur) ট্রাফিক মোড় সংলগ্ন একটি খাবার দোকানের সামনে গাড়ি রেখে ভিতরে ঢোকেন খড়দহের বাসিন্দা রবি সিং। দোকান থেকে বেরিয়ে গাড়ি বের করার সময় পুলিশ কর্মীর সঙ্গে তাঁর বচসা বাধে। এরপরই ঘটে রোমহর্ষক ঘটনা। আক্রান্ত রবি সিংয়ের অভিযোগ, পুলিশ স্টিকার লাগানো গাড়িতে বসে থাকা ব্যক্তি তাঁকে গাড়ি সরাতে বলে। গাড়ি বের করার জন্য অনেকটা জায়গা রয়েছে, তাই গাড়ি সরানোর প্রয়োজন হবে না বলেছিলেন রবি।

[আরও পড়ুন: ফের মানসিক অবসাদের বলি! ফরাক্কায় সার্ভিস রিভলবার থেকে গুলি ছুঁড়ে আত্মঘাতী CISF জওয়ান]

আক্রান্তের কথায়, “কিন্তু কোনও কথা না শুনেই সে আমার বাইকে ধাক্কা মারে। আমি প্রতিবাদ করলে কোনও কিছু বুঝে ওঠার আগেই উনি জোরে গাড়ি চালিয়ে আমাকে ধাক্কা মারে। আমি কোনওরকমে গাড়ির বনেটে উঠে পড়ি। ওই অবস্থায় গাড়ি না থামিয়ে প্রচণ্ড জোরে ওই ব্যক্তি বিটি রোড দিয়ে আমাকে নিয়ে যেতে থাকে। আমি সমস্ত বিষয়টি মোবাইলে ভিডিও করি। চিৎকার করে সাহায্য চাইলেও কেউ সাহায্য করতে এগিয়ে আসেনি। এক কিলোমিটার দূরে নিয়ে গিয়ে গাড়ি থামিয়ে আমাকে ওই ব্যক্তি বেধড়ক মারধর করে। এরপর গাড়ি চালিয়ে পালিয়ে যায়।”

রাতে টহলরত পুলিশ আক্রান্ত যুবককে উদ্ধার করে। আক্রান্তের এবিষয়ে খড়দহ থানায় অভিযোগ দায়ের হয়। এই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে রবিবার পুলিশকর্মী সৌমেন দাসকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এবিষয়ে বারাকপুর কমিশনারেটের এক আধিকারিক বলেন, অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তার গাড়িটি বাজয়াপ্ত করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘সংবাদ প্রতিদিন’-এর খবরের জের, বাঁকুড়ার শিকলবন্দি যুবককে হাসপাতালে পাঠাল পুলিশ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে