BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

আন্দামান সাগরে ঘনীভূত হচ্ছে নিম্নচাপ, আগামী ৪৮ ঘণ্টায় বৃষ্টির সম্ভাবনা রাজ্যে

Published by: Bishakha Pal |    Posted: May 13, 2020 1:03 pm|    Updated: May 13, 2020 1:03 pm

An Images

নব্যেন্দু হাজরা: দিন কয়েক আগেই সপ্তাহভর বৃষ্টির পূর্বাভাসের কথা জানিয়েছিল আবহাওয়া দপ্তর। এবার জানা গেল আন্দামান সাগরে ঘনীভূত হচ্ছে নিম্নচাপ। যার জেরে আগামী ৪৮ ঘণ্টা রাজ্যে ঝড় ও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় ঝড় ও বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস। আগামী কয়েকদিন উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলি এবং পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলিতেও ঝড় বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। অসম মেঘালয়ে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস। এই নিম্নচাপের হাত ধরে ভারতে ঢুকবে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ু।

আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, দক্ষিণ-পশ্চিম দিক থেকে জলীয় বাষ্পপূর্ণ বাতাস ঢুকছে রাজ্যে। এর জেরেই বজ্রগর্ভ মেঘের সঞ্চার হচ্ছে আকাশে। আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ঝড় ও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে। কলকাতাতেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মেঘলা হতে শুরু করবে আকাশ। বুধবার বিকেলের দিকে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে ঝড় ও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। এই সপ্তাহে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে রাজ্যজুড়ে। দক্ষিণ-পশ্চিমের জলীয় বাষ্পপূর্ণ বাতাসে ভর করেই বজ্রগর্ভ মেঘ সৃষ্টি হচ্ছে। তার থেকেই ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। উত্তর বাংলাদেশ ও মেঘালয় সংলগ্ন এলাকায় ঘূর্ণাবর্ত। এর প্রভাবে উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্য এবং পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলি তে আগামী ৪ থেকে ৫ দিন ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা। কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় আগামী ৪৮ ঘণ্টায় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

[ আরও পড়ুন: অভিনব উদ্যোগ, করোনা প্রতিরোধক গ্রাম গড়ছে পুরুলিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় ]

কলকাতায় দিন ও রাতের তাপমাত্রা দুটোই বেড়েছে। বুধবার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকবে ২৮.১ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশপাশে। ওর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে ৩৭.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশপাশে। বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ ৪৫ থেকে ৯০ শতাংশ। বাতাসে যে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ অনেকটাই বেড়েছে হাওয়া অফিসের রিপোর্টে তা স্পষ্ট। অন্যদিকে দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর ও দক্ষিণ আন্দামান সাগরে শক্তি বাড়াচ্ছে ঘূর্ণিঝড়। আগামিকালের মধ্যে এটি নিম্নচাপে পরিণত হবে। বৃহস্পতি থেকে শনিবারের পর্যন্ত মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যাওয়ার ক্ষেত্রে জারি হয়েছে নিষেধাজ্ঞা। এই নিম্নচাপের টানেই দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমি বায়ু অর্থাৎ বর্ষা ঢুকবে আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে।

[ আরও পড়ুন: সুস্থ সন্তানের জন্ম দিলেন করোনা আক্রান্ত প্রসূতি, দুশ্চিন্তামুক্ত পরিবার ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement