৭  আশ্বিন  ১৪২৯  রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

Abhishek Banerjee: ‘আজ ডায়মন্ড হারবার যা ভাবে, কাল গোটা বাংলা তাই ভাবে’, ‘ডায়মন্ড মডেলের’ প্রশংসা অভিষেকের

Published by: Paramita Paul |    Posted: April 30, 2022 5:33 pm|    Updated: April 30, 2022 6:34 pm

MP Abhishek Banerjee praises Diamond Harbour Model

সুরজিৎ দেব, ডায়মন্ড হারবার: ‘ডায়মন্ড হারবার মডেলের’ প্রশংসায় পঞ্চমুখ সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় (MP Abhishek Banerjee)। তাঁর কথায়, “ডায়মন্ড হারবার আজ যা ভাবে, কাল সারা বাংলা তাই ভাবে।” সেই সঙ্গে করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের সময় পরীক্ষা বাড়িয়ে কীভাবে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছিল ডায়মন্ড হারবার প্রশাসন, তাও এদিন তুলে ধরলেন তিনি।

শনিবার পৈলানে ডায়মন্ড হারবার (Diamond Harbour) পুলিশ জেলার নিজস্ব ভবন উদ্বোধন করেন সাংসদ। সেই উদ্বোধনের মঞ্চ থেকেই ডায়মন্ড হারবার প্রশাসনের প্রশংসা করেন তিনি। বলেন, “ডায়মন্ড হারবারের নামের মধ্যেই ডায়মন্ড রয়েছে। গোখলে একসময় বলেছিলেন, আজ বাংলা যা ভাবে, কাল গোটা দেশ তাই ভাবে। আজ ডায়মন্ড হারবার যা ভাবে, গোটা বাংলা কাল তাই ভাবে।” এর পরই বহুচর্চিত ‘ডায়মন্ড মডেল’ (Diamond Model) প্রসঙ্গও টেনে আনেন তিনি। একইসঙ্গে অভিষেক মনে করিয়ে দিয়েছেন, “করোনা এখনও চলে যায়নি। যে কোনও সময় করোনার ঢেউ আসতে পারে। তাই মাস্ক পরুন। মানুষ সচেতন থাকুন। আপনাদের আনন্দ যেন অন্যের নিরানন্দের কারণ না হয়।”

[আরও পড়ুন: তৃতীয় ফ্রন্ট গড়ে বিজেপিকে হারানো সম্ভব নয়, ফের বললেন পিকে, সঙ্গে কংগ্রেসের প্রশংসাও]

এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর সুরেই এবার ডায়মন্ড হারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ও (Abhishek Banerjee) পুলিশ প্রশাসনকে সাহায্য করার জন্য সংবাদমাধ্যমের কাছে অনুরোধ জানান। সেখানেই তিনি বলেন, “পুলিশ প্রশাসনকে কখনওই কালিমালিপ্ত হতে দেব না। কোনওরকম অপ্রীতিকর ঘটনা যেন না ঘটে। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ পুলিশকে নিরপেক্ষ থাকতে হবে।” পুলিশ-প্রশাসনকে তাঁর পরামর্শ, “দরকার হলে মিডিয়া সেল খুলুন। মিডিয়ার সাহায্য নিন।” সংবাদমাধ্যমকে সাংসদের বার্তা, “কোনও খবর পেলে পুলিশ প্রশাসনকে জানান। সঠিক খবরের জন্য পুরস্কার প্রদান করা হবে।”

রাজ্য প্রশাসনের প্রশংসা করে অভিষেক বলেন, “দেশের অন্যান্য রাজ্যে সুপ্রিম কোর্ট হস্তক্ষেপ না করলে রাজ্য প্রশাসন ব্যবস্থা নেয় না। এরাজ্যে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে দুষ্কৃতীরা গ্রেপ্তার হয়। সুন্দরবন থেকে কোচবিহার কোথাও পালিয়ে এ রাজ্যে রেহাই নেই দুষ্কৃতীদের।”

[আরও পড়ুন: পাঞ্জাবে উদ্ধার ১৬০ বছরের পুরনো নরকঙ্কাল সিপাহী বিদ্রোহের বাঙালি সৈনিকদের!]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে