Advertisement
Advertisement
Basanti Highway

নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খালে পড়ল ভ্যান, চালকের মৃতদেহ নিয়ে বাসন্তী হাইওয়েতে দীর্ঘক্ষণ বিক্ষোভ

স্থানীয়রা খালে নেমে দেহ উদ্ধার করে, পুলিশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন তাঁরা।

Protest at Basanti highway with victim of road accident, huge jam | Sangbad Pratidin
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:January 10, 2023 4:30 pm
  • Updated:January 10, 2023 4:45 pm

দেবব্রত মণ্ডল, বারুইপুর: বাসন্তী হাইওয়েতে (Basanti Highway)মর্মান্তিক দুর্ঘটনার জেরে দীর্ঘক্ষণ ধরে যানজটে কর্মব্যস্ত দিনে সমস্য়ার মুখে যাত্রীরা। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খালে পড়লেন ইঞ্জিন ভ্যানের চালক। কিন্তু দীর্ঘ সময় ধরে উদ্ধারকাজ হয়নি, এই অভিযোগে রাস্তায় নেমে আসে উত্তেজিত জনতা। প্রায় একঘণ্টা পর খাল থেকে চালকের মৃতদেহ উদ্ধার হওয়ার পর সেই ক্ষোভের আগুনে কার্যত ঘি পড়ে। দেহ নিয়ে বাসন্তী হাইওয়ে অবরোধ (Road Block) করেন তাঁরা। যে ভ্যানটি দুর্ঘটনার কবলে পড়েছে, তা বন্ধ করতে পুলিশ প্রশাসন কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। তাই এদিন বিক্ষোভে নামেন তাঁরা। দীর্ঘক্ষণ ধরে হাইওয়েতে দাঁড়িয়ে একাধিক গাড়ি।

এই খালেই পড়ে ভ্যানটি, তলিয়ে গিয়েছেন চালক।

ঘড়ির কাটায় তখন সকাল সাড়ে ছ’টা। মুরগির প্লাস্টিকের ঝাঁকা নিয়ে একটি ইঞ্জিনচালিত ভ্যান দক্ষিণ ২৪ পরগনা (South 24 Parganas) লাগোয়া কলকাতা-বাসন্তী হাইওয়ে ধরে চণ্ডীপুর থেকে যাচ্ছিল। বামুনিয়া ব্রিজের কাছে আসতে ইটবোঝাই একটি গাড়িকে পাশ দিতে গিয়ে সজোরে ব্রিজের গার্ডওয়ালে ধাক্কা মেরে ভ্যানটি ছিটকে পড়ে খালে। জলে পড়ে ভ্যানচালক তলিয়ে যান।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ক্রমেই বাড়ছে ফাটল, হোটেল-সহ যোশিমঠের একাধিক বাড়ি ভাঙছে উত্তরাখণ্ড সরকার]

ঘটনাটি নিয়ে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানাচ্ছেন, ভ্যানটি জলে পড়ার পর এলাকার কয়েকজন যুবক ভ্যানচালককে  খোঁজাখুঁজি করেন। যত বেলা গড়াতে থাকে, মানুষের ভিড়ও বাড়তে থাকে কলকাতা- বাসন্তী বামুনিয়া ব্রিজের উপর। কার্যত অবরোধের চেহারা নেয় হাইওয়ে। ছোট গাড়ি, বাস সব দাঁড়িয়ে পড়ে। দুর্ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ পৌঁছয় বামুনিয়া ব্রিজের কাছে। কলকাতা-বাসন্তী রাস্তার উপর থেকে অবরোধ তুলে নেওয়ার জন্য বোঝাতে থাকে। কিন্তু বিক্ষোভকারীরা পালটা প্রশ্ন তোলেন, জলে নেমে ওই ভ্যানচালককে উদ্ধারের চেষ্টা কেন করেনি পুলিশ?

Advertisement

[আরও পড়ুন: নজরে শিল্পে বিনিয়োগ, ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্কে জমির দাম কমানোর পথে রাজ্য]

পুলিশ-বিক্ষোভকারীদের একপ্রস্ত বচসার পর স্থানীয় কয়েকজন খালে নেমে চালককে খোঁজাখুঁজি করতে থাকেন। এক ঘন্টার পর ভ্যান চালকের মৃতদেহ উদ্ধার করে। এরপর সেই দেহ নিয়ে দফায় দফায় চলে অবরোধ। ঘণ্টার পর ঘণ্টা ধরে দাঁড়িয়ে থাকে বাস, ছোট গাড়ি, লরি। সমস্যায় পড়েন পথচলতি মানুষ।  তাঁদের একটাই অভিযোগ, পুলিশ প্রশাসন ও শাসকদলের নেতারা অবৈধ ইঞ্জিন ভ্যান রাস্তা থেকে তুলে দিচ্ছে না। তাই এধরনের গাড়ির বাড়বাড়ন্ত। আর তার জেরে ব্যস্ত সময় দুর্ঘটনা বাড়ছে। কলকাতা-দক্ষিণ ২৪ পরগনা সংযোগকারী গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় এই পরিস্থিতিতে খুবই সমস্যা হয়। 

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ