২৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  সোমবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  সোমবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক : স্কুলে যাওয়ার পথে ট্রেনে কাটা পড়ে দাদু-নাতনির মৃত্যু।প্রতিবাদে বেলঘরিয়া-দমদমের মাঝে ট্রেন অবরোধ। যার জেরে দীর্ঘক্ষণ শিয়ালদহের মেন শাখায় ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টা থেকে চূড়ান্ত ভোগান্তির শিকার হন শিয়ালদহ মেন লাইনের নিত্যযাত্রীরা। অবরোধের প্রতিবাদ করায় ট্রেনের যাত্রীদের উপর চড়াও হয় অবরোধকারীরা। তাঁদের মারধোর করারও অভিযোগ উঠেছে।এদিকে অবরোধকারীদের অভিযোগ, বেলঘরিয়া ও দমদমের মাঝে সিসিআর ব্রিজের প্রায়শই দুর্ঘটনা ঘটে। তাই সেখানে ওভারব্রিজ বানানোর দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। এ বিষয়ে রেলে কর্তৃপক্ষের আশ্বাস না মিললে এই অবরোধ চলবে বলে জানিয়েছেন আন্দোলনকারীরা।

[আরও পড়ুন : বুরারির ছায়া গাজিয়াবাদে, সন্তানদের মেরে স্ত্রী ও সঙ্গিনীকে নিয়ে মরণঝাঁপ ব্যবসায়ীর]

 

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, প্রতিদিনের মত আজও ডাক্তার বাগানের বাড়ি থেকে দাদু রজত ধরের হাত স্কুলের পথে রওনা দিয়েছিল প্রথম শ্রেণির ছাত্রী জুঁই ধর। বরানগর তীর্থ ভারতী স্কুলের প্রথম শ্রেণির ছাত্রী ছিল জুঁই। স্কুল যাওয়ার পথে ট্রেন লাইন পার হওয়ার গিয়ে দমদম স্টেশনের আগে সিসিআর ব্রিজের কাছেই বর্ধমান লোকালে কাটা পড়েন তাঁরা। মর্মান্তিক এই জোড়া মৃত্যুতে ক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানীয় বাসিন্দারা। ঘাতক ট্রেনটি দাঁড় করিয়ে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন তাঁরা। রেল লাইনে দেহ ফেলেই চলে বিক্ষোভ। তাঁদের অভিযোগ, সিসিআর ব্রিজের কাছে প্রায়শই দুর্ঘটনা ঘটে। এই এলাকায় ট্রেন লাইনের দু’পাশেই রয়েছে ঘনবসতি। প্রয়োজনে প্রায়শই স্থানীয় বাসিন্দাদের লাইন পেরিয়ে অপরদিকে যেতে হয়। অথচ সেখানে লাইন পার করার জন্য কোনও ওভারব্রিজ নেই।বারবার দাবি জানিয়েও কোনও লাভ হয়নি। স্থানীয় বাসিন্দাদের আরও অভিযোগ, ট্রেন চালকরাও এই এলাকা পার করার সময় হর্ন বাজায় না। ফলে মাঝেমধ্যেই দুর্ঘটনার শিকার হন সাধারণ যাত্রীরা।ওই এলাকায় কোনও লেবেল ক্রসিং নেই বলেও জানা গিয়েছে। এদিন বিক্ষোভকারীরা জানান, রেল কর্তৃপক্ষ ফুটব্রিজ তৈরির আশ্বাস না দিলে অবরোধ চলবে।

[আরও পড়ুন : দুই গোষ্ঠীর এলাকা দখলের লড়াই, বাসন্তীতে গুলিতে খুন তৃণমূল কর্মী]

এদিকে এই অবরোধের জেরে শিয়ালদহ মেন শাখায় ট্রেন চলাচল কার্যত বন্ধ হয়ে যায়। আটকে পড়া ট্রেনের যাত্রীরা অবরোধের বিরোধিতা করায় তাঁদের মারধোরও করা হয় বলে অভিযোগ। টিটাগড়, সোদপুর, খড়দহ, বেলঘরিয়া স্টেশনে কার্য়ত ভিড় জমে যায়। মর্মান্তিক দুর্ঘটনার প্রতি সহানুভূতি জানিয়েও অবরোধ নিয়ে বিরক্তি প্রকাশ করেন তাঁরা। নিত্যযাত্রীদের কথায়, যে কোনও দুর্ঘটনাই মর্মান্তিক। কিন্তু তা বলে অবরোধ করে ভোগান্তি বাড়ানোর কোনও অর্থ হয় না।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং