২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

ভাস্কর মুখোপাধ্যায়,বোলপুর: বিশ্বভারতীতে ভরতির ফি বাড়ানোর প্রতিবাদে আন্দোলনে নামছেন ছাত্রছাত্রীরা। মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের একাধিক ভবনের ছাত্রছাত্রীরা পাঠভবন চত্বরে বৈঠক করেন। পরে তারা জানিয়ে দেয় আগামী ১৭ তারিখ তাঁরা উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তীর সঙ্গে দেখা করবেন এবং জমা দেবেন স্মারকলিপি। পড়ুয়াদের দাবি, বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ না মানলে সেক্ষেত্রে নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে আন্দোলনে নামবে।

[আরও পড়ুন: ‘বিজেপির কাজে আমরা লজ্জিত, ক্ষমাপ্রার্থী’, বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙা নিয়ে তীব্র শ্লেষ মমতার]

বিশ্বভারতী সূত্রে জানা গিয়েছে, এবার বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ভরতির ফি বাড়াতে চলেছে বেশ অনেকটাই। গত বছর স্নাতক স্তরে ভরতির ফি ছিল এক হাজার, স্নাতকোত্তর স্তরে ছিল ১৫০০ টাকা। এবার তা বেড়ে হবে দু’হাজার এবং তিন হাজার টাকা। এছাড়াও সোশ্যাল ওয়ার্ক, এগ্রিকালচার, বিপিএড, বিএড,এমপিএড,এমএড-সহ বেশ কয়েকটি কোর্সের ক্ষেত্রে এক হাজার থেকে বেড়ে চার হাজার, আবার কিছু ক্ষেত্রে ছয় হাজার করা হয়েছে। এমফিলের ক্ষেত্রে দু’হাজার থেকে পাঁচ হাজার এবং পিএইচডি-র ক্ষেত্রে ভর্তি ফি বেড়ে আট হাজার হয়েছে।

এদিকে ভরতি ফি-এর বিজ্ঞপ্তি পড়তেই আন্দোলনে নেমে পড়েছে বিভিন্ন ভবনের ছাত্রছাত্রীরা। মঙ্গলবার প্রায় একশো ছাত্রছাত্রী পাঠভবন চত্বরে জমায়েত করেন। সেখানে তাঁরা বৈঠক করেন। অধিকাংশ ছাত্রছাত্রী ভরতি ফি বাড়ানো নিয়ে তীব্র প্রতিবাদ জানান। তার জানিয়ে দেন, বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ তাঁদের সঙ্গে কোনও রকম আলোচনা না করে এই ফি বাড়িয়ে দিয়েছে। এই বিষয়ে ছাত্র স্বপ্ননীল মুখোপাধ্যায় বলেন, ‘বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ ভরতি ফি কয়েক গুন বাড়য়ে দিয়েছে। ছাত্রছাত্রীদের পক্ষে এই ফি দেওয়া সম্ভব নয়। উপাচার্যের সঙ্গে ১৭ তারিখে দেখা করে স্মারকলিপি দেব। কর্তৃপক্ষ আমাদের দাবি না মানলে আন্দোলনে নামবে ছাত্রছাত্রীরা।’ বিশ্বভারতীর ভারপ্রাপ্ত জন সংযোগ আধিকারিক অনির্বাণ সরকার বলেন, সেন্ট্রাল অ্যাডমিশন কমিটির সিদ্ধান্ত অনুসারে ফি বেড়েছে।

[আরও পড়ুন: বুকে রেখে মোবাইলে চার্জ, বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে প্রাণ গেল যুবকের]

এদিকে ছাত্র ভরতি নিয়ে বিতর্ক পিছু ছাড়ছে না মালদহের গৌড়বঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়েরও। এবার স্নাতকোত্তর স্তরে ছাত্র ভরতিতে বেনিয়মের অভিযোগ উঠেছে কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। এই অভিযোগ তুলে ছাত্র বিক্ষোভে মঙ্গলবার উত্তাল হয়ে ওঠে গৌড়বঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়। স্বয়ং উপাচার্যের ঘরের মধ্যে চরম বিশৃঙ্খলা পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। চলে ধস্তাধস্তি চিৎকার-চেঁচামেচি। উপাচার্য নিজেও পরিস্থিতি সামাল দিতে হিমশিম খান।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং