Advertisement
Advertisement
Purulia

ভোটের জেরে বাংলা-ঝাড়খণ্ড সীমানায় ‘তালা’, তবু জমজমাট দুয়ারসিনি হাট

আর পাঁচটা দিনের মতোই বিকিকিনি, বলছেন বিক্রেতা।

Purulia Duarsini Market is full of life even during polls

পুরুলিয়ার বান্দোয়ানের দুয়ারসিনি হাট জমজমাট। ছবি: অমিতলাল সিং দেও।

Published by: Kishore Ghosh
  • Posted:May 25, 2024 11:40 pm
  • Updated:May 25, 2024 11:40 pm

সুমিত বিশ্বাস ও অমিতলাল সিং দেও, পুরুলিয়া ও বান্দোয়ান: দুই রাজ্যে ভোটে জন্য সীমানা সিল। তবু শনি হাটের বিকিকিনি আটকাতে পারল না নির্বাচন। ষষ্ঠ দফায় শনিবার পুরুলিয়ায় যেমন ভোট ছিল, তেমনই ভোট ছিল ঝাড়গ্রাম লোকসভার অধীনে পুরুলিয়ার বান্দোয়ান লাগোয়া ঝাড়খণ্ডের পূর্ব সিংভূমে, জামশেদপুর কেন্দ্রে। কিন্তু দুই রাজ্যের ভোট কোন প্রভাব ফেলতে পারল না দুয়ারসিনি হাটে।

ফি শনিবার এই দুয়ারসিনিতে হাট বসে। ঝাড়খণ্ড থেকে মানুষজন এই হাটে বেচাকেনা করতে আসেন। বাংলার প্রত্যন্ত গ্রামগুলো তো রয়েছেই। যেমন বান্দোয়ানের ধাদকা, কুঁচিয়া, মৃগীচামি। পূর্ব সিংভূমের পিটামার, নরসিংপুর, শুকলাড়ার সঙ্গেও এই হাটের গভীর যোগ। তবে ভোটের জন্য সীমানা সিল হওয়ায় এদিন তারা হাটে পা রাখতে পারেননি। তারপরেও হাট ছিল মোটের উপর জমজমাট। বাসনপত্র নিয়ে আসা বান্দোয়ানের ধাদকা গ্রামের বাসিন্দা সলিলকুমার দাস বলেন, “বিকিকিনি আর পাঁচটা দিনের মতোই স্বাভাবিক হয়েছে। হাট আছে বলেই সকাল-সকাল ভোট দিয়ে চলে আসি।”

Advertisement

 

Advertisement
Purulia Duarsini Market is full of life even during polls
বান্দোয়ানের বাজারে চলছে বিকিকিনি। ছবি: অমিতলাল সিং দেও।

 

[আরও পড়ুন: বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ড গুজরাটের রাজকোটে, গেমিং জোনে জীবন্ত দগ্ধ অন্তত ২০

যদিও অতীতে এই এলাকা ছিল মাওবাদীদের মুক্তাঞ্চল। তখন হাট বসলেও সন্ধে পর্যন্ত কেনাকাটা চলত না। এখন অবশ্য সেই ছবি নেই। ভোটের দিনেও সন্ধের পরও বেচাকেনা দেখল দুয়ারসিনি। জামাকাপড়, বাসনপত্র, মুদি দোকানের নানান জিনিসপত্র, এমনকী হাঁস-মুরগিও বিক্রি হয়। বাদ যায় না হাঁড়িয়াও।

 

[আরও পড়ুন: কড়া নাড়ছে ‘রেমাল’, দুর্যোগ মোকাবিলায় জরুরি বৈঠকে জেলা প্রশাসন, বন্ধ হল ফেরি পরিষেবা]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ