BREAKING NEWS

১২ ফাল্গুন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

করোনা টিকা নিলেন শীলভদ্র দত্ত! ভাইরাল ছবি ঘিরে অস্বস্তিতে বিজেপি

Published by: Sayani Sen |    Posted: January 19, 2021 1:48 pm|    Updated: January 19, 2021 4:19 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা টিকাকরণ (Covid Vaccination) কর্মসূচিতে দলীয় বিধায়করা অংশ নেওয়ায় অস্বস্তিতে পড়েছিল তৃণমূল। তবে এবার ভাইরাল অন্য ছবি। টিকা নিতে দেখা গেল তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে নাম লেখানো শীলভদ্র দত্তকে। চিকিৎসক কিংবা স্বাস্থ্যকর্মী না হওয়া সত্ত্বেও কীভাবে তিনি টিকা নিলেন, উঠছে সেই প্রশ্ন।

প্রথম দফায় রাজ্যে চলছে করোনা টিকাকরণ কর্মসূচি। কোভিড মোকাবিলায় চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের দেওয়া হচ্ছে টিকা। অথচ বহু রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বকে টিকা নিতে দেখা যাচ্ছে। ঘাসফুল শিবিরের জনপ্রতিনিধিদের টিকা নেওয়ার ঘটনাকে হাতিয়ার করে আসরে নেমেছে বিরোধী বিজেপি। যা নিয়ে অস্বস্তিতে তৃণমূল। তবে এবার উলটপুরাণ। টিকা নিতে দেখা গেল তৃণমূল থেকে সদ্য বিজেপিতে নাম লেখানো শীলভদ্র দত্তকে (Shilbhadra Dutta)। তাঁর টিকা নেওয়ার ছবি বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল। ছবিটি বারাকপুর বিএন বসু মহকুমা হাসপাতালের।

[আরও পড়ুন: ‘বউ সামলাতে পারে না, শাসকদলের বিরুদ্ধে লড়বেন কীভাবে?’, সৌমিত্র খাঁকে খোঁচা তৃণমূল নেতার]

উল্লেখ্য, এর আগে গত শনিবার কাটোয়ার বিধায়ক রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়কে করোনার টিকা নিতে দেখা যায়। ভাতারের বিধায়ক, প্রাক্তন বিধায়ক, ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক সংঘমিত্রা ভৌমিক, পূর্ব বর্ধমান জেলাপরিষদের বিদ্যুৎ কর্মাধ্যক্ষ জহর বাগদি, ভাতার পঞ্চায়েত সমিতির স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষ মহেন্দ্র হাজরাও করোনার টিকা নেন। সকলেরই দাবি, রোগীকল্যাণ সমিতির সদস্য হওয়ায় টিকা নিয়েছেন তাঁরা। শীলভদ্র দত্তের টিকা নেওয়ার নেপথ্যেও একই কারণ দেখানো হয়েছে। বলা হয়েছে, বারাকপুর বিএন বসু মহকুমা হাসপাতালের রোগীকল্যাণ সমিতির সদস্য তিনি। চিকিৎসক কিংবা স্বাস্থ্যকর্মী না হওয়া সত্ত্বেও কীভাবে টিকা নিতে পারেন শীলভদ্রবাবু, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। যদিও এ বিষয়ে মুখে কুলুপ পদ্ম শিবিরের।

[আরও পড়ুন: শিক্ষিকার আপত্তিকর ছবি ভাইরাল করার হুমকি, চুনকালি মাখিয়ে জুতোপেটা অধ্যক্ষকে]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement