BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সাতসকালে গুলি চলল বিটি রোডে, জখম তৃণমূল কাউন্সিলরের স্বামী

Published by: Tanumoy Ghosal |    Posted: May 1, 2019 12:02 pm|    Updated: May 1, 2019 12:02 pm

An Images

আকাশনীল ভট্টাচার্য, বারাকপুর: সাতসকালে গুলি চলল বিটি রোডে। সোদপুরের কাছে গুলিবিদ্ধ তৃণমূল কাউন্সিলরের স্বামী। ডান হাতে গুলি লেগেছে তাঁর। বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি তিনি।

[ আরও পড়ুন: ফাঁকা ক্লাসরুমে ঘনিষ্ঠ অবস্থায় শিক্ষক-শিক্ষিকা, উত্তাল তেহট্টের স্কুল]

উত্তর ২৪ পরগনার খড়দহ পুরসভার তৃণমূল কাউন্সিলর দোলা দাস। সোদপুরের কাছে বিটি রোডে তাঁর স্বামীকে ননীগোপাল দাসকে লক্ষ্য করে গুলি চালাল দুষ্কৃতীরা। পুলিশ জানিয়েছে, পরিবহণ ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত ননীগোপাল। রোজ সকালে ব্যবসার কাজে সোদপুরের আমবাগান এলাকার বাড়ি থেকে বাইকে চেপে ডানলপে যান তিনি। বুধবার সকালে যখন ফিরছিলেন, তখন বাইকে চেপে ওই পরিবহণ ব্যবসায়ীর পিছু নেয় দু’জন দুষ্কৃতী। সোদপুরের ধানকলের মোড়ের কাছে তৃণমূল কাউন্সিলরের স্বামীকে লক্ষ্য করে খুব কাছ থেকে গুলি চালিয়ে পালিয়ে যায় তারা। ডান হাতে গুলি লাগে ননীগোপাল দাসের। ঘটনার পর কোনওমতে বাইক ফেলে ঘটনাস্থল থেকে পালান তিনি। এখন বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে ননীগোপাল দাসের।

কিন্তু সাতসকালে বিটি রোডের মতো জনবহুল জায়গায় কেন তৃণমূল কাউন্সিলরের স্বামীকে লক্ষ্য করে গুলি চলল? বিষয়টি এখনও স্পষ্ট নয়। খড়দহ পুরসভার চেয়ারম্যান তাপস পালের বক্তব্য, ব্যবসা সংক্রান্ত কারণে হয়তো ননীগোপাল দাসের কাছে টাকা চাওয়া হয়েছিল। তাই নিয়ে বিবাদেই গুলি চলেছে। বাংলার নববর্ষের দিনে টোটো চালকদের বিবাদে তুমুল অশান্তি হয় টিটাগড়ে। সেবারও গুলি চলেছিল। গুলিবিদ্ধ হয়েছিলেন একজন।

[আরও পড়ুন: মদন মিত্রের সভা ঘিরে অগ্নিগর্ভ ভাটপাড়া, চলল বোমাবাজি-ভাঙচুর]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement