BREAKING NEWS

২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  বুধবার ৭ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বাবুলের চ্যালেঞ্জে পালটা তৃণমূলের গান, ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: April 3, 2019 1:44 pm|    Updated: April 3, 2019 3:09 pm

Targetting Babul Supriyo, TMC worker records a song

চন্দ্রশেখর চট্টোপাধ্যায়, আসানসোল: বাবুল টুইট করে বলেছিলেন, “আমার গানে আপত্তি কীসের। স্লোগানকে সুর দিয়ে গান বানিয়েছি। ক্ষমতা থাকলে আপনারাও বানান, কে আপত্তি করেছে।” বাবুলের সেই চ্যালেঞ্জকে গ্রহণ করে পালটা গান বানিয়ে ফেললেন এক তৃণমূল কর্মী দুর্গেশ নাগি। বাবুলের বিরুদ্ধে র‍্যাপ ফরম্যাটে সোয়্যাগে লেখা হয়, “খানে পিনে ঢাক বাজানে আসানসোল ম্যায় দিখে তুম, নেহি লাগায় তু কিসি মজবুরকো মরম… গাঁও গোদ লেনেকা তেরে ওয়াদা ক্যায়া হুয়া? বার্ন স্ট্যান্ডার্ড এইচসিএল কো তুনে বন্দ কিয়া.., মিনিস্টার বনকে এক ফ্যাক্টরি লাগায়ে হো তুম? যো মু উঠাকে তুম আপনে ভোট মাগনে আয়ে হো”। আর এই র‍্যাপই এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়।

[আরও পড়ুন:  ব্রিগেডে যাওয়ার পথে আক্রান্ত বিজেপি কর্মীরা, ভাঙচুর বাস]

বাবুলের বিরুদ্ধে প্রচারে তৃণমূলের হাতিয়ার হয়ে উটেছে এই গান। দুর্গেশ জানান, ২০১৪ সালে তিনি বাবুলেরই সৈনিক ছিলেন। কিন্তু তিনি ভোটে জেতার পর পুরনো কর্মীদের ভুলে গেলেন। একের পর এক জনবিরোধী কাজ করলেন। তাই তাঁর মতো অনেকেই বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে এসেছেন। কড়া ভাষায় বাবুল সুপ্রিয়কে গানে গানে বিদ্ধ করেন দুর্গেশ। কেবলস কারখানা বন্ধ থেকে দত্তক গ্রামের ব্যর্থতার প্রসঙ্গ তুলে ধরা হয়েছে এই গানে। এই প্রজন্মের ট্রেন্ডি গান র‍্যাপ। বাবুলকে বিদ্ধ করে সোয়্যাগ লিখে মিউজিক কম্পোজ করে ভিডিও অ্যালবাম তৈরি করেছেন ওই যুবক। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই গান ছাড়তেই হু-হু করে বাড়ছে দর্শকের সংখ্যা, সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে লাইক ও কমেন্টের সংখ্যাও। মন্ত্রী সাংসদ বাবুলের ব্যর্থতার কথা তুলে ধরা হয়েছে গানে। জনপ্রিয় র‍্যাপার অ্যামিবে বন্টাইয়ের হিট গান “বহুত হার্ড” গানটিকে প্যারোডি ফরম্যাটে তৈরি করে বানানো হয়েছে দুর্গেশের এই বাবুলবিরোধী গান। তবে দুর্গেশ পেশাদার কোনও গায়ক নন। তিনি একজন ভাল লেখক। শুধুমাত্র মুখ্যমন্ত্রীকে অবমাননার জবাব দিতে বাবুলকে টার্গেট করে গানটি পালটা ছেড়েছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়।

[আরও পড়ুন:  নির্বাচনের সময়ও জমা দিতে হবে না বন্দুক, ‘বিশেষ’ ছাড় কমিশনের]

গানের প্রসঙ্গে দুর্গেশ জানান হিন্দি ও ভোজপুরি স্লোগানকে মিউজিক দিয়ে আরও পাঁচটি গান তৈরি করেছেন তিনি। হিন্দি ভাষায় গানটি তৈরি করার জন্য হিন্দিভাষী ও বাংলাভাষী সকলের কাছে গানটি পৌঁছে যাচ্ছে। যেহেতু, রাজ্যে এই দুই ভাষাতেই লোক সরগড় সবচাইতে বেশি। বাবুলের তৈরি করা ‘এই তৃণমূল আর না’র মতো এবার যুবক-যুবতীদের মুখে মুখে শুরু হয়েছে “মুনমুনকো হারানা বহুত হার্ড, বাবুল তেরা জিত পানা বহুত হার্ড।” লোকসভা ভোটের মরশুমে দুর্গেশ নাগির গান তৃণমূল কর্মীদের হট ফেভরিট। বিশেষ করে, আসানসোলবাসীদের কাছে।

দেখুন ভিডিও:

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে