২৪  মাঘ  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ 

READ IN APP

Advertisement

ইতিহাস গড়ে শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদে তৃণমূলের বোর্ড, নির্বাচিত সভাধিপতি ও সহ-সভাধিপতি

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: July 14, 2022 2:44 pm|    Updated: July 14, 2022 2:47 pm

TMC captures Siliguri Mahakuma Parishad for the first time made history | Sangbad Pratidin

অভ্রবরণ চট্টোপাধ্যায়, শিলিগুড়ি: উত্তরবঙ্গের রাজনীতিতে ইতিহাস গড়ল তৃণমূল (TMC)। এই প্রথমবার শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদের ক্ষমতা দখল করল রাজ্যের শাসকদল। এতদিন তা ছিল বামেদের (Left Front) হাতে। গত ২৬ জুন ভোট হয় শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদের। ফলপ্রকাশের পর দেখা যায়, মহকুমা পরিষদের ৯ টি আসনের মধ্যে ৮টিতেই জিতেছে তৃণমূল। আজ, বৃহস্পতিবার শিলিগুড়িতে বৈঠকে করে বোর্ড গঠনের প্রক্রিয়া সারলেন পাহাড়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত তৃণমূল নেতা তথা রাজ্যের মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস। বেছে নেওয়া হয়েছে সভাধিপতি ও সহ-সভাধিপতিকেও।

শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদের সভাধিপতি নির্বাচিত হয়েছেন অরুণ ঘোষ। সহ-সভাধিপতি আদিবাসী অভিনেত্রী রোমা রেশমি এক্কা। অরুণ ঘোষ ২০০৮ সালে তৃণমূলে যোগদান করেন তিনি। আর তারপর তাঁরই হাত ধরে তৈরি হল ইতিহাস। প্রথমবার শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদের সভাধিপতি হলেন অরুণ ঘোষ। এবারের নির্বাচনে নকশালবাড়ি থেকে জিতেছেন তিনি। আর সহ-সভাধিপতি রোমা রেশমি এক্কা জিতেছেন শিলিগুড়ির বিধাননগর থেকে। মহকুমা পরিষদের দলনেতা নির্বাচিত হয়েছেন তৃণমূলের ক্যাপটেন নলিনীরঞ্জন রায়। তিনি মাটিগাড়া থেকে জয়ী হয়েছেন।

[আরও পড়ুন: রাষ্ট্রপতি নির্বাচন: বিধানসভা নয়, BJP সাংসদদের মতো সংসদেই ভোট দেবেন শিশির ও দিব্যেন্দু

বৃহস্পতিবার অরূপ বিশ্বাস (Arup Biswas) শিলিগুড়িতে নবনির্বাচিত বোর্ড সদস্যদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। সেখানেই ঠিক হয়েছে পদাধিকারীদের নাম। তিনি জানান, চলতি মাসের শেষে শপথগ্রহণের জন্য বিজ্ঞপ্তি জারি হবে। তারপর বোর্ড গঠন এবং কাজকর্ম শুরু। শিলিগুড়ির চার পঞ্চায়েত সমিতি ও ২২টি গ্রাম পঞ্চায়েতও তৃণমূলের দখলে। পঞ্চায়েত সমিতি ও গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধানদের নাম ঘোষণা করা হবে পরে। 

[আরও পড়ুন: বেআইনি মাংসের কারবার! প্রাক্তন মন্ত্রীর ১০০ কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল যোগীর পুলিশ]

শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদ তৃণমূলের দখলে যাওয়া রাজনৈতিক দিক থেকে অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।  পরিষদ গঠন হওয়ার পর থেকে তা বরাবর বামেদের দখলেই ছিল। সে অর্থে তৃণমূলের এই জয় বড় সাফল্য নিঃসন্দেহে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে