BREAKING NEWS

১১ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

মহেশতলা দখলেই রাখল তৃণমূল, সিপিএমকে পিছনে ফেলে দ্বিতীয় বিজেপি

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 31, 2018 2:41 pm|    Updated: May 31, 2018 2:41 pm

TMC supports smears gulal, celebrate by-poll victory in Maheshtala

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রত্যাশা ছিলই৷ অপেক্ষা ছিল শুধুই ঘোষণার৷ বৃহস্পতিবার সবুজ আবির উড়িয়ে ফের মহেশতলায় বিধানসভা কেন্দ্রের দখল নিল তৃণমূল৷ ৬২ হাজার ৮৯৬ ভোটের ব্যবধানে বিজেপি ও বাম-কংগ্রেস জোটকে ধূলিসাৎ করে রাজ্য বিধানসভায় নিজের জায়গা পাকা করেন নিলেন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের শ্বশুর দুলাল দাস৷

মহেশতলা উপনির্বাচনে ভোট গণনার ফলাফল বলছে, বিরোধীদের গুঁড়িয়ে মোট ৬২ হাজার ৮৯৬ ভোটের ব্যবধানে জয় ছিনিয়ে আনেন তৃণমূল প্রার্থী দুলাল দাস৷ তাঁর মোট প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা ১ লক্ষ ৪ হাজার ৮১৮টি ভোট৷ বিজেপি এবারও উঠে এসেছে দ্বিতীয় স্থানে৷ গেরুয়া শিবিরের প্রাপ্ত ভোট ৪১ হাজার ৯৯৩টি৷ বাম-কংগ্রেস জোটের ভোট ভাগ্য এবারও পুড়েছে৷ জোট গড়ে লড়াই করার পরও বাম-কংগ্রেস প্রার্থীর ভোটবাক্সে পড়েছে ৩০ হাজার ৩১৬টি ভোট৷

পঞ্চায়েত নির্বাচনের মতো মহেশতলার নির্বাচনে বিজেপির ফলাফল দেখে খুশি বঙ্গ বিজেপি৷ বিজেপির দাবি, ২০১৬ বিধানসভা থেকে এবার উপনির্বাচনে ২৭ হাজার ৮৪ ভোট বেড়েছে৷ বাম ও কংগ্রেস এর বড় অংশের ভোট বিজেপির ঝুলিতে এসেছে বলে জানালেন দিলীপ ঘোষ৷ দিলীপবাবুর মন্তব্য, বিজেপির ২৭ হাজার ভোট বেড়েছে। সেখানে তৃণমূলের ভোট বেড়েছে ১২ হাজার৷ দিলীপ ঘোষের আরও মন্তব্য, ‘‘বিজেপি যে গতিতে এগোচ্ছে, সেই গতি এখানেও রয়েছে। আমরা বাম-কংগ্রেসকে পিছনে ফেলে দ্বিতীয় স্থানটা পাকা করেছি আমরা৷’’ দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলায় সাংগঠনিক ভাবে বিজেপি দুর্বল৷ তবুও বিজেপি দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসায় রাজ্য বিধানসভা দখলের ‘স্বপ্ন’ দেখতে শুরু করেছে গেরুয়া শিবির৷

এমনিতেই উপনির্বাচনে শাসকদল বাড়তি সুবিধা পেয়ে থাকে৷ তারপর দুলাল দাসের নিজের জনপ্রিয়তা তাঁকে জয়ের পথে সহজেই এগিয়ে দিয়েছে৷ মহেশতলা উপনির্বাচনে বেশ পিছিয়ে বাম-কংগ্রেস জোট ও বিজেপি৷ ভোটের ব্যবধান প্রায় অনেক৷ তৃণমূল বিধায়ক কস্তুরি দাসের মৃত্যুর পর ওই কেন্দ্রে উপ-নির্বাচনের লড়াইয়ে নামে তৃণমূল, বাম-কংগ্রেস ও বিজেপি৷ নির্বাচনে তৃণমূল টিকিটে ভোটে লড়েন সম্পর্কে মেয়র শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়ের শ্বশুর তথা প্রয়াত তৃণমূল বিধায়ক কস্তুরীর স্বামী দুলালচন্দ্র দাস৷ কংগ্রেস-সিপিএম জোটের হয়ে ভোটে লড়েন প্রভাত চৌধুরি ও বিজেপির টিকিটে লড়াইয়ে ময়দানে নেমেছেন সুজিত কুমার ঘোষ৷

তবে, দুলালের জয়ের খবরে বেশ খানিকটা মানসিক চাপ বাড়ল মেয়রের ঘাড়ে৷ কারণ, কলকাতার মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের নিকটাত্মীয় দুলাল দাস। সম্পর্কে মেয়রের শ্বশুরমশাই তিনি। তবে আপাতত মেয়ে ও জামাইয়ের মধ্যে চলা লড়াইয়ে কিছুটা চিড় ধরেছে সম্পর্কে বলেই মনে করা হচ্ছে। স্বামীর বিরুদ্ধে একের পর এক অভিযোগ এনে শিরোনাম দখল করেছেন মেয়র-পত্নী রত্না চট্টোপাধ্যায়। পালটা তোপ দাগতে ছাড়েননি মেয়রও। অন্দরের খবর, কলহের কারণ নাকি বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়৷ এই জটিলতার মধ্যে দুলাল দাসের জয়ে দলের মধ্যে আরও চাপে রয়েছেন শোভন৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে