৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

টিটুন মল্লিক ও সম্যক খান: বাঁকুড়ায় আক্রান্ত তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা। বড়জোড়ায় ভরদুপুরে পার্টি অফিসে ঢুকে তাঁদের বেধড়ক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। ঘটনায় আহত ১৫ জন। সকলেই ভরতি বড়জোড়া সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে। হামলার অভিযোগ বিজেপির বিরুদ্ধে।

[আরও পড়ুন: সাতসকালে উপপ্রধানের বাড়ি লক্ষ্য করে গুলি, আলিপুরদুয়ারে আতঙ্কে বাসিন্দারা]

হাতে আর মাত্র একদিন। রবিবার কলকাতায় তৃণমূল কংগ্রেসের ২১ জুলাইয়ের শহিদ সমাবেশ। এই সভাকে ঘিরে জেলায় জেলায় দলের কর্মীদের প্রস্তুতি তুঙ্গে। জানা গিয়েছে, শুক্রবার দুপুরে বাঁকুড়ার বড়জোড়ার পখন্যা অঞ্চলে দলের কার্যালয়ে বৈঠক করছিলেন স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা। অভিযোগ, বৈঠক চলাকালীন লাঠি-বল্লম-রড নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের পার্টি অফিসে হামলা চালায় একদল দুষ্কৃতী। পার্টি অফিসে চলে তাণ্ডব, বেধড়ক মারধর করা তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীদের। ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন ১৫ জন। সকলেই ভরতি বড়জোড়া সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে। কিন্তু, ভরদুপুরে বড়জোড়ায় তৃণমূল কংগ্রেসের পার্টি অফিসে কারা হামলা চালাল? অভিযোগের তির বিজেপির দিকে। স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, হামলার খবর পেয়ে যখন পুলিশ এলাকায় পৌঁছায়, তখন পুলিশকে ঘিরেও বিক্ষোভ দেখান বিজেপি কর্মীরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ মৃদু লাঠিচার্জও করে বলে অভিযোগ।

এদিকে তৃণমূল কংগ্রেসের পার্টি অফিস বৃহস্পতিবার রাতে উত্তেজনা ছড়ায় পশ্চিম মেদিনীপুরের ঘেরুয়া এলাকায়। গত কয়েক দিন ধরেই তৃণমূল ও বিজেপি সংঘর্ষে এলাকায় চাপা উত্তেজনা ছিল বলে জানা গিয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে পরিস্থিতি ফের উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। ঘেরুয়াতে তৃণমূল কংগ্রেসের পার্টি অফিস, এমনকী বেশ কয়েকটি বাড়িতেও ভাঙচুর চলে বলে অভিযোগ। পরিস্থিতি এতটাই তেতে ওঠে যে, পুলিশকে গুলি চালাতে হয়।

[আরও পড়ুন: লাভপুরে তৃণমূল নেতার বাড়িতে বোমাবাজি, অভিযোগের তির বিজেপির দিকে]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং