৫ ফাল্গুন  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সোশ্যাল মিডিয়ায় অনুব্রত মণ্ডলের পরিবারের নামে কুকথা বলার অভিযোগে উওরবঙ্গ থেকে দুই যুবককে গ্রেপ্তার করল বোলপুর থানার পুলিশ। সূত্রের খবর, এই ঘটনায় আরও এক নাবালককে গ্রেপ্তারও করা হয়। দুই যুবককে বোলপুর মহকুমা আদালতে তোলা হলে আদালত ৯ দিনের পুলিশি হেফাজত দিয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়ে, দিন কয়েক আগে তৃণমূলের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল বিশ্বভারতীতে বামছাত্রদের আন্দোলন প্রসঙ্গে বলেছিলেন,“সুটিয়ে লাল করে দেব।” আর এই কথা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে একাধিক ভিডিও তৈরি করে ছড়িয়ে দেওয়া হয়। অভিযোগ, এর মধ্যে একটি ভিডিওতে অনুব্রত মণ্ডলের পরিবার নিয়ে কটূক্তি করে দুই যুবক।সূত্রের খবর, সোশ্যামল মিডিয়ায় তৃণমূল নেতার মেয়েকে তুলে নিয়ে গিয়ে বিয়েরও হুমকি দিয়েছিল ওই যুবক। সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়। এর পরেই বীরভূম জেলা তৃণমূল আইটি সেলের সদস্য সুমন দে ওই দুই যুবকের নামে বোলপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করে। আর এই অভিযোগের ভিত্তিতে প্রথমে আলিপুরদুয়ারের ফালাকাটা থেকে সুকান্ত বর্মণ এবং পরে উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ থেকে অরুপ সরকারকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। সূত্রের খবর, ধৃত নাবালক অনুব্রত মণ্ডলকে নিয়ে একটি ভিডিও তৈরি করেছিল। সেখানে তৃণমূল নেতার মেয়েকে তুলে নিয়ে গিয়ে বিয়ে করার হুমকিও দেওয়া হয়।

[আরও পড়ুন: শীতের দোসর প্লাবন, কংসাবতীর জলে ঝাড়গ্রামে অকাল বন্যায় দিশেহারা গ্রামবাসীরা]

এই বিষয়ে বোলপুর মহকুমা আদালতের সরকারি আইনজীবী শ্যামসুন্দর কোঁয়ার বলেন, “অনুব্রত মণ্ডলের পরিবারের নামে সোশ্যাল মিডিয়াতে কটূক্তি করেছিল দুই যুবক। সুমন দে-র অভিযোগের ভিত্তিতে সুকান্ত বর্মন এবং অরুপ সরকারকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। তাদের বিরুদ্ধে ৩৫৪, ৩৫৪এ, ৪৬৯, ৫০৬, ১২০বি ধারার পাশাপাশি তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৬ এবং ৬৬এ ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে। পুলিশ তাদের ১০ দিনের হেফাজত চাইলেও বিচারক ৯ দিন পুলিশি হেফাজত মঞ্জুর করেছে। আগামী ১লা ফেব্রুয়ারি এই দুজনকে আবার আদালতে তোলা হবে।”

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং