১১ ফাল্গুন  ১৪২৬  সোমবার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১১ ফাল্গুন  ১৪২৬  সোমবার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

দিব্যেন্দু মজুমদার, হুগলি: কোন্নগরে বাঘের আতঙ্ক ওড়াল বনদপ্তরের আধিকারিকরা। ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও নমুনা খতিয়ে দেখে তাঁরা জানালেন সিসিটিভি ফুটেজে যে প্রাণীটিকে দেখা গিয়েছিল সেটি বাঘ নয়, বাঘরোল। আতঙ্কের কোনও কারণ নেই, সাফ জানিয়ে দিলেন তাঁরা।

বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রামের পর রবিবার থেকে বাঘের আতঙ্ক ছড়ায় হুগলির কোন্নগরের কানাইপুরের রায়পাড়ার। সোমবার সকালে স্থানীয় একটি স্টিলের সামগ্রী তৈরির কারখানার সিসিটিভিতেই ধরা পড়ে ‘বাঘের’ ছবি। ফুটেজে দেখা যায়, কারখানার সামনে দাঁড়িয়ে থাকা একটি গাড়ির পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছে একটি চিতাবাঘের মতো প্রাণী। তাতেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন স্থানীয়রা। এলাকার যুবকেরা লাঠিসোঁটা হাতে স্থানীয় এক জঙ্গলে বাঘ খুঁজতে বেরিয়ে পড়েন। জঙ্গলের ভিতর একটি গরুর দেহও পড়ে থাকতে দেখা যায়। খবর দেওয়া হয় বনদপ্তরে। নিরাপত্তার স্বার্থে ওই জঙ্গল থেকে আপাতত সকলকে বের করে দেওয়া হয়েছে। ঘিরে রাখা হয় জঙ্গল।

Hooghly-Leopard

[আরও পড়ুন: দোলের আগেই শান্তিনিকেতনে বসন্ত উৎসব, বিশ্বভারতীর সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ শিক্ষামন্ত্রী]

প্রাণীটি আদৌ বাঘ কি না তা নিয়ে সন্দিহান ছিলেন সকলেই। এরপরই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন বনকর্মীরা। খতিয়ে দেখেন সিসিটিভি ফুটেজ। তাঁরাই নিশ্চিত করেন যে, ফুটেজে যে প্রাণীটিকে দেখা গিয়েছে সেটি কোনওভাবেই বাঘ নয়, বাঘরোল। বনকর্মীদের সঙ্গে আলোচনার পর একই কথা জানান বনমন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ও। স্থানীয়দের আতঙ্কিত হওয়ার কোনও কারণ নেই, এমনটাও জানান তিনি। ফুটেজে দেখতে পাওয়া অজানা প্রাণীটি বাঘ নয় তা জানান পর কিছুটা স্বস্তিতে স্থানীয়রা। প্রসঙ্গত, প্রথম থেকেই সিসিটিভি ফুটেজে দেখতে পাওয়া ওই প্রাণীটিকে বাঘ বলে মানতে নারাজ ছিলেন ব্যাঘ্র বিশেষজ্ঞ জয়দীপ কুণ্ডু। ফোনে SangbadPratidin.in-কে তিনি জানিয়েছিলেন, “হাঁটার ভঙ্গিমা, লেজ এবং পিঠ দেখেই বোঝা যাচ্ছে ওই প্রাণীটি কোনওভাবেই বাঘ নয়।” ঘটনাস্থল খতিয়ে দেখার পর তাঁর অনুমানেই শিলমোহর দিলেন বনকর্মীরা।

[আরও পড়ুন: ছাত্রমৃত্যুতে রণক্ষেত্র কোচবিহারের নার্সিংহোম, আক্রান্ত কোতয়ালি থানার আইসি]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং