১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৬ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

Mamata Banerjee: রাজ্যে ফের বিনিয়োগ টাটার, খড়গপুরে ছশো কোটির ইউনিটের ফিতে কাটলেন মুখ্যমন্ত্রী

Published by: Paramita Paul |    Posted: September 15, 2022 3:40 pm|    Updated: September 15, 2022 4:48 pm

WB CM Mamata Banerjee inaugurates Tata Metaliks expanded unit in Kharagpur | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিরোধী দলনেত্রী থাকাকালীন সিঙ্গুরে টাটাগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (WB CM Mamata Banerjee)। করেছিলেন অনশনও। যার জন্য রাজ্য ছেড়েছিল টাটাগোষ্ঠী। এখন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর মুখ্যমন্ত্রিত্বকালেই এবার বাংলায় বিপুল বিনিয়োগ করল টাটাগোষ্ঠী। বৃহস্পতিবার খড়গপুরে টাটা মেটালিক্সের সম্প্রসারিত ইউনিটের উদ্বোধন করলেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানে রাজ্যের ছেলেমেয়েদের কর্মসংস্থানের আশাও রাখলেন তিনি।

চারদিনের জেলা সফরে খড়গপুরের টাটা মেটালিক্সের সম্প্রসারিত ইউনিটের উদ্বোধন করেন মুখ্যমন্ত্রী। এই সম্প্রসারণে প্রায় ৬০০ কোটি টাকার বিনিয়োগ করেছে টাটাগোষ্ঠী। ফলে স্থানীয় শতাধিক ছেলেমেয়ে চাকরি পাবেন বলে আশাপ্রকাশ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। এই প্রথম টাটাগোষ্ঠীর কোনও শিল্পের উদ্বোধন করলেন মুখ্যমন্ত্রী। যা অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। প্রসঙ্গত, খড়গপুরে টাটা মেটালিক্সের ইউনিটটি ছিল আগেই। ২০১৯ সাল থেকে ৬০০ কোটি টাকা বিনিয়োগে সেই ইউনিটের সম্প্রসারণ শুরু হয়। এদিন সেই ইউনিটের উদ্বোধন করলেন মুখ্যমন্ত্রী। 

[আরও পড়ুন: ‘পুরুষ দেহরক্ষীকে যৌননিগ্রহ, জানাজানির ভয়ে খুন’, নাম না করে ফের শুভেন্দুকে নিশানা তৃণমূলের

খড়গপুরের অনুষ্ঠান থেকে মুখ্যমন্ত্রী জানান,”কর্মসংস্থান আমাদের লক্ষ্য। দেশে কর্মসংস্থান কমছে। আর আমাদের রাজ্যে ৪০ শতাংশ বেকারত্ব কমেছে।” রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বৃহৎ শিল্প গড়ে উঠছে বলেও জানান মমতা। মুখ্যমন্ত্রীর এদিনের ভাষণে উঠে আসে দেউচা পাঁচামি, আসানসোলের সেলগ্যাস তৈরির মতো প্রকল্পের কথা। তিনি জানান, “বীরভূমের দেউচা পাঁচামি প্রকল্পে কয়েক লক্ষ কর্মসংস্থান হবে। আসানসোলেও সেলগ্যাস উত্তোলন হবে। সেখানেও চাকরি পাবে বহু মানুষ। প্রচুর বিনিয়োগ হচ্ছে রাজ্যে। এরাজ্যের ছেলেমেয়েদের চাকরির অভাব হবে না।”

প্রসঙ্গত, বাম আমলে সিঙ্গুরে টাটাগোষ্ঠী ন্যানো গাড়ির উৎপাদন ইউনিট তৈরি করতে চেয়েছিল। জমি অধিগ্রহণ করে কারখানাও বানিয়ে ফেলে তারা। অভিযোগ ছিল, জোর করে কৃষকদের চাষের জমি অধিগ্রহণ করেছিল বাম সরকার। কিন্তু তৎকালীন বিরোধীনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের লাগাতার আন্দোলনের জেরে রাজ্য ছাড়ে টাটাগোষ্ঠী। এরাজ্যে আর ন্যানো কারখানা হয়নি। আর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সেই সময়ের আন্দোলনের জেরেই ২০১১ সালে গদিচ্যুত হয় বাম সরকার, এমনটাই দাবি রাজনৈতিক মহলের। এবার সেই টাটাগোষ্ঠীর প্রকল্পের লাল ফিতে কাটলেন মুখ্যমন্ত্রী। 

[আরও পড়ুন: ‘দিলীপের নখের যোগ্য নয় কেউ’, শুভেন্দু-সুকান্তর পারফরম্যান্স নিয়ে কটাক্ষ কুণাল ঘোষের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে