৩ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ১৭ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

লিফলেট বিলি করে ঘোষণা, পঞ্চায়েত নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন ৬ বিজেপি প্রার্থী

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 7, 2018 8:49 pm|    Updated: May 7, 2018 8:49 pm

WB Panchayat Election 2018: 6 BJP candidate quits, supports TMC

সন্দীপ মজুমদার, উলুবেড়িয়া: লিফলেট বিলি করে পঞ্চায়েত নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন ছয় বিজেপি প্রার্থী। একই সঙ্গে তাঁরা তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করে তৃণমূল প্রার্থীদের হয়ে নির্বাচনী প্রচারে অংশও নিলেন। ঘটনাটি ঘটেছে উদয়নারায়ণপুর থানার খিলা গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায়। এই ছ’জনের মধ্যে ৫ জন খিলা গ্রাম পঞ্চায়েত এবং একজন উদয়নারায়ণপুর পঞ্চায়েত সমিতির একটি আসন থেকে বিজেপির প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছিলেন।

[রাজনৈতিক মঞ্চ ব্যবহার করে জয়ীদের শংসাপত্র বিলি, রামপুরহাটে তুঙ্গে বিতর্ক]

সোমবার বিকেলে বিধায়ক সমীর পাঁজার নেতৃত্বে খিলা চৌরাস্তার মোড়ে এক পথসভায় এই ছ’জন বিজেপি প্রার্থী তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করেন। তার আগে তাঁরা তাঁদের এলাকায় লিফলেট বিলি করে পঞ্চায়েত নির্বাচন থেকে নিজেদের সরে যাওয়ার কথা এলাকাবাসীকে জানান এবং তৃণমূল প্রার্থীদের হয়ে নির্বাচনী প্রচারে অংশগ্রহণ করেন। এই ছ’জন প্রার্থী হলেন খিলা গ্রাম পঞ্চায়েতের ৮৩ নম্বর বুথের হারাধন ভৌমিক, ৮৪ নম্বর বুথের সুলেখা কোলে, ৮৯ নম্বর বুথের রীনা দ্বারী, ৯০ নম্বর বুথের নবকুমার সামন্ত এবং ৯২ নম্বর বুথের শ্যামদুলাল অধিকারী। এছাড়াও উদয়নারায়নপুর পঞ্চায়েত সমিতির ১৭ নম্বর আসনের বিজেপি প্রার্থী কবিতা শি পঞ্চায়েত নির্বাচন থেকে সরে আসার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন।

[তৃণমূল প্রাণনাশের হুমকি দেয়নি, সাংবাদিক সম্মেলনে সাফ কথা নির্বাচন কমিশনারের]

প্রত্যেকে লিখিতভাবে জানিয়েছেন, বিভ্রান্তিমূলক প্রচারে ধন্ধে পড়েই তাঁরা বিজেপির হয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। কিন্তু পরে তাঁরা তাঁদের ভুল বুঝতে পেরে সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন এবং একইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আনুগত্য মেনে চলার অঙ্গীকার করেন। এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে বিজেপির হাওড়া গ্রামীণ জেলা সভাপতি অনুপম মল্লিক জানান, তাঁদের প্রার্থীদের ভয় দেখিয়ে জোর করে নির্বাচন থেকে সরানোর চেষ্টা হয়েছে।

[‘জল দাও, ভোট নাও’, প্রতিবাদে সরব হেমতাবাদের গ্রামবাসীরা]

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে