৩ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ১৭ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

না দেওয়া আসনে প্রার্থী খোঁজা শুরু করল বিরোধীরা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 14, 2018 7:34 pm|    Updated: December 4, 2018 4:42 pm

West Bengal Panchayat Polls: oppositions again looking for candidates

রাহুল চক্রবর্তী: পঞ্চায়েত পর্বে নতুন করে আশায় বুক বেঁধেছে বিরোধীরা। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার দিন বাড়তে পারে, এই আশায় ফের প্রার্থী খোঁজার কাজে ঝাঁপাল কংগ্রেস, সিপিএম, বিজেপি।

আগামী ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত পঞ্চায়েতের নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ দিয়েছে হাই কোর্ট। পঞ্চায়েত ভোট পিছিয়ে যেতে পারে, এমন সম্ভাবনাও তৈরি হয়েছে। রাজনৈতিক নেতা-নেত্রী থেকে প্রার্থী তদোপরি আমজনতার নজর এখন হাই কোর্টের দিকেই। প্রশ্ন এখানেই, এবার কী হবে?

ভোটের ভবিষ্যৎ দেখেই কি প্রার্থীরা ময়দানে নামবেন? যদিও সেই সম্ভাবনা একেবারেই উড়িয়ে দিয়েছেন তৃণমূলের প্রার্থীরা। উত্তর ২৪ পরগনা জেলা পরিষদ আসনে তৃণমূল প্রার্থী নারায়ণ গোস্বামীর বক্তব্য, “আমরা ভোট ময়দান থেকে সরছি না। প্রচার, মিটিং, মিছিল, পথসভা, কর্মিসভা-সবই চলবে। নির্বাচন যেদিনেই হোক, আমরা প্রস্তুত আছি।”

[শিয়রে ভোট, চড়ক-গাজনের মেলায় উপোস করে ব্রত পালন প্রার্থীদের]

বিজেপি অবশ্য এই ফাঁকে না দেওয়া আসনে নতুন প্রার্থী খোঁজার কাজ শুরু করে দিয়েছে। হাওড়া বালি-জগাছা ব্লকের বিজেপি নেতা এবং পঞ্চায়েতের প্রার্থী রামকৃষ্ণ সেনেটি বলেন, “আশা করছি ১৬ এপ্রিল হাই কোর্ট মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার জন্য দিন বাড়াবে। সেই কারণে আগের মনোনয়ন পর্বে যে সমস্ত আসনে প্রার্থী দিতে পারিনি, সেই আসনগুলিতে যাতে প্রার্থী দেওয়া যায় তার কাজ শুরু করছি।” মুর্শিদাবাদের কংগ্রেস প্রার্থী আবদুল রউফের বক্তব্য, “মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সময় দলের নেতা-নেত্রী, প্রার্থী সকলেই আক্রান্ত হয়েছেন। আগামী ১৬ এপ্রিল হাই কোর্ট যদি ফের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার নির্দেশ দেয় তাহলে একটাই আবেদন, যথাযথ পুলিশি ব্যবস্থা ও হাই কোর্টের পর্যবেক্ষণ যেন থাকে।”

আরও বেশি আসনে যাতে প্রার্থী দেওয়া যায়, তার প্রস্তুতিও শুরু করে দিয়েছে কংগ্রেস। সিপিএম নেতৃত্ব প্রার্থীদের পরামর্শ দিয়েছে, প্রয়োজনে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন পর্যন্ত এলাকার বাইরে থাকতে। যেহেতু পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভবিষ্যৎ হাই কোর্টের দরজায় গিয়েছে, ফলে আগামিদিনে মনোনয়নত্র জমা দেওয়ার দিন বাড়লে তাতে নিরাপত্তা আগের বারের থেকে বেশি থাকবে বলে মনে করছে বাম নেতৃত্ব। সেই কারণে নতুন করে যাতে আগেরবারের না দেওয়া আসনে প্রার্থী দেওয়া যায় তার কাজে নেমে পড়েছে বামেরা। বিরোধীদের বক্তব্য, হাতে সময় এসেছে। ফলে এর মধ্যেই প্রার্থী খোঁজ করতে হবে। যে সমস্ত প্রার্থী দেওয়া যায়নি সেখানে যাতে ফের মনোনয়ন জমা দেওয়া যায়, তার সবরকম প্রস্তুতি নিয়ে রাখতে হবে।

[ভোট বৈতরণি পার হতে আরএসপির প্রার্থী এবার মা ও ছেলে]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে