BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  রবিবার ২৯ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মাত্র কয়েকঘণ্টার ব্যবধানে একই জায়গা থেকে উদ্ধার ২ মহিলার দেহ, কুলতলিতে চাঞ্চল্য

Published by: Sayani Sen |    Posted: January 24, 2020 8:46 am|    Updated: January 24, 2020 3:26 pm

Womens body recovered from South 24 Paragana's Kultali's Merrygunj

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাত্র কয়েকঘণ্টার ব্যবধানে প্রায় একই জায়গা থেকে উদ্ধার দুই মহিলার ক্ষতবিক্ষত দেহ। এই ঘটনায় দক্ষিণ ২৪ পরগনার কুলতলির মেরিগঞ্জে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে ইটভাটা যাওয়ার পথে প্রথমে এক মহিলার ক্ষতবিক্ষত দেহ দেখতে পাওয়া যায়। শুক্রবার মাত্র ১০০ মিটার দূরে পিয়ালি নদীর চরে আরেক মহিলার দেহ পড়ে থাকতে দেখেন মৎস্যজীবীরা। ঘটনাস্থল থেকে একটি চাদর এবং ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহতদের নাম-পরিচয় এখনও জানা যায়নি। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, খুন করা হয়েছে। তবে কে বা কারা এই ঘটনায় জড়িত, কেনই বা খুন করা হল তাদের তা খতিয়ে দেখছেন কুলতলি এবং বারুইপুর জেলা পুলিশের আধিকারিকরা।

দক্ষিণ ২৪ পরগনার কুলতলির মেরিগঞ্জে রয়েছে ইটভাটা। কাজ সেরে বৃহস্পতিবার রাতে শ্রমিকরা বাড়ি ফিরছিলেন। সেই সময় তাঁরা দেখতে পান রাস্তায় উপুড় হয়ে পড়ে রয়েছেন এক মহিলা। কাছে গিয়ে স্থানীয়রা বুঝতে পারেন তিনি আর বেঁচে নেই। খবর দেওয়া হয় পুলিশকে। কুলতলি থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায়। এই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই শুক্রবার সকালে মেরিগঞ্জ থেকে মাত্র ১০০ মিটার দূরে পিয়ালি নদীর চরে আরও এক মহিলার ক্ষতবিক্ষত দেহ পড়ে থাকতে দেখেন মৎস্যজীবীরা। খবর দেওয়া হয় কুলতলি থানা এবং বারুইপুর জেলা পুলিশকে। ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানোর বন্দোবস্ত করা হয়েছে। নিহত ওই দুই মহিলার নাম-পরিচয় এখনও জানা যায়নি। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ একটি চাদর এবং ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করেছে।

[আরও পড়ুন: কলকাতার হোটেলে বসে বাঘের ছাল বিক্রির চেষ্টা, গ্রেপ্তার ৩]

দুই মহিলার ক্ষতবিক্ষত দেহ উদ্ধারের ঘটনায় একাধিক প্রশ্নের ভিড়। ধর্ষণ করে ওই মহিলাদের খুন করা হয়েছে নাকি শুধুমাত্র খুন করা হয়েছে তাঁদের, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। যদিও প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, খুনই করা হয়েছে তাঁদের। সেক্ষেত্রে প্রশ্ন উঠছে, ওই এলাকাতেই কি খুন করা হয়েছে মহিলাদের নাকি অন্যত্র খুন করে দেহ ফেলে রেখে যাওয়া হয়েছে। আপাতত স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে ঘটনার জট খোলার চেষ্টা করছেন পুলিশ আধিকারিকরা।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে