৬ শ্রাবণ  ১৪২৬  সোমবার ২২ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৬ শ্রাবণ  ১৪২৬  সোমবার ২২ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে এবার সরাসরি আইনের পথে হাঁটলেন কঙ্গনা রানাউত। কঙ্গনার দিদি রঙ্গোলি তাঁর টুইটারে একটি পোস্ট করেছেন। কঙ্গনার আইনজীবী সিদ্দিকি অ্যান্ড অ্যাসোসিয়েটসের তরফে এটি প্রকাশ করা হয়েছে। বিবৃতিতে লেখা রয়েছে, ওই সাংবাদিক কঙ্গনাকে জনসমক্ষে হেনস্তা করেছেন, ভয় দেখিয়েছেন। এর মধ্য দিয়ে সাংবাদিকের অপরাধমনস্কতার পরিচয় পাওয়া গিয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে বিবৃতিতে।

[ আরও পড়ুন: ২৪ লক্ষ টাকা প্রতারণার অভিযোগ, সোনাক্ষীর বাড়িতে পুলিশ ]

গোটা বিষটিতে পেশাদারিত্বের অভাব রয়েছে বলে জানিয়েছেন আইনজীবী রিজওয়ান সিদ্দিকি। এমনকী, সংবিধানের বাকস্বাধীনতার অধিকারকেও ওই সাংবাদিক ভঙ্গ করেছেন বলে অভিযোগ তুলেছেন কঙ্গনা। বিবৃতি প্রকাশের পাশাপাশি রঙ্গোলি নিজে টুইটারে লিখেছেন, “এই দোকানটি বন্ধ করুন আর ওনাকে জেলে পাঠান। উনি ক্রিমিনাল। কী করে ওনারা কঙ্গনাকে ভয় দেখাতে পারেন?” ওই চিঠিতে ‘এন্টারটেনমেন্ট জার্নালিস্ট গিল্ড’-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলা হয়েছে এই সংগঠন অপেশাদার সাংবাদিকদের সমর্থন করছে।

উল্লেখ্য, দিনকয়েক আগে একটি অনুষ্ঠানে এক সাংবাদিকের সঙ্গে বচসায় জড়িয়েছিলেন কঙ্গনা রানাউত। ‘মণিকর্ণিকা’-র নেতিবাচক রিভিউয়ের জন্য ওই সাংবাদিককে একহাত নেন তিনি। এর পরিপ্রেক্ষিতে কঙ্গনাকে নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার দাবি ওঠে। কিন্তু কঙ্গনা ক্ষমার ধার ধারেননি। উলটে সাংবাদিকদের তিনি আরও তীব্র আক্রমণ করেন। বলেন, অনেক সাংবাদিকই গুজব ছড়ান। তাঁদের নিম্ন মানসিকতার পরিচয় দেন। দেশদ্রোহিতা করেন সর্বসমক্ষে। সংবিধানে এর কোনও শাস্তি নেই। এরপরই মিডিয়াকে ‘বিক্রিত’, ‘সস্তা’ ও ‘ক্লাস টেন ফেল’ আখ্যা দেন তিনি। বলেন, কোনও ভাল ইস্যু নিয়ে সাংবাদিকরা কখনও খবর করেন না। প্রেস কনফারেন্সে এঁরা বিনামূল্যে খেতে চলে আসেন। তাঁর কাছে ‘দেশদ্রোহীদের’ কোনও জায়গা নেই।

[ আরও পড়ুন: অন্তর্বাস সংস্থার মালকিন সানি লিওনে, জেনে নিন স্টোরের হালহকিকত ]

এরপরই অভিনেত্রী আরও বলেন, “তোমাদের কেনার জন্য তো লাখ টাকাও চাই না। তোমরা তো এতটাই সস্তা যে ৬০ টাকায় বিক্রি হয়ে যাও।” এরপরই সাংবাদিকদের পূর্বপুরুষদের তুলে আনেন তিনি। বলেন, তাঁদেরও তিনি ঘোল খাইয়ে ছেড়েছেন। আজ যদি সত্যিই সাংবাদিকদের মূল্য থাকত তবে তিনি দেশের সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিকপ্রাপ্ত নায়িকা হতে পারতেন না। সেইসঙ্গে সগর্বে কঙ্গনা ঘোষণা করেন, তিনি সাংবাদিকদের কাছে ব্রাত্য হলে কোনও সমস্যা নেই৷ অভিনেত্রীর এমন আস্ফালন দেখে হতবাক তাঁর অনেক অনুরাগীও৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং