BREAKING NEWS

১২ কার্তিক  ১৪২৭  শুক্রবার ৩০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

নব্বইয়ের গণ্ডি পেরিয়ে মহারাষ্ট্র সরকারের পক্ষ থেকে ‘বিশেষ’ উপহার পেলেন লতা মঙ্গেশকর

Published by: Suparna Majumder |    Posted: September 29, 2020 5:00 pm|    Updated: October 1, 2020 12:55 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সোমবার ৯০-এর গণ্ডি পেরিয়ে জীবনের ৯১তম বছরে প্রবেশ করেছেন। সারা ভারতবর্ষে শুভেচ্ছার বন্যা বয়ে গিয়েছে। শুভেচ্ছা জানিয়ে সুর সম্রাজ্ঞীর দীর্ঘ জীবন কামনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও (Narendra Modi)। এবার মহারাষ্ট্র সরকারের বিশেষ উপহার পেলেন লতা মঙ্গেশকর (Lata Mangeshkar)। কিংবদন্তি সংগীতশিল্পীর বাবা দীনানাথ মঙ্গেশকরের নামে বিশ্বমানের সংগীত কলেজ তৈরি করা হবে মহারাষ্ট্রে। সিদ্ধান্ত নিয়েছে উদ্ধব ঠাকরের (Uddhav Thackeray) নেতৃত্বাধীন জোট সরকার।

মহারাষ্ট্র সরকারে পক্ষ থেকে ঘোষণাটি করেন রাজ্যের মন্ত্রী উদয় সামন্ত (Uday Samant)। প্রিয় ‘লতা দিদি’র জন্মদিনের উপহার হিসেবে এই কলেজের সিদ্ধান্তকে ব্যাখ্যা করেছেন তিনি। জানিয়েছেন, এই সিদ্ধান্তে খুশি হয়েছেন কিংবদন্তি সংগীত শিল্পী।

[আরও পড়ুন: ধর্ষকদের প্রকাশ্যে গুলি করে মারা হোক, দলিত যুবতীর মৃত্যুতে টুইটারে গর্জে উঠলেন কঙ্গনা]

১৯২৯ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর মারাঠি ও কোঙ্কিণী সঙ্গীতজ্ঞ তথা মঞ্চ অভিনেতা দীনানাথ মঙ্গেশকর (Deenanath Mangeshkar) এবং তাঁর স্ত্রী সেভন্তির ঘরে প্রথম সন্তানের জন্ম হয়। জন্মের সময় লতা মঙ্গেশকরের নাম ছিল হেমা। পরে নিজের রচিত নাটকের চরিত্র লতিকা অবলম্বনে বড় মেয়ের নাম লতা রেখেছিলেন দীনানাথ মঙ্গেশকর। বাবা অনুপ্রেরণাতেই পাঁচ বছর বয়স থেকে লতার সংগীত শিক্ষা শুরু। মাত্র ১৩ বছর বয়সে বাবাকে হারিয়েছিলেন কিংবদন্তি শিল্পী। তারপরই পারিবারিক বন্ধুর সাহায়্যে প্লে-ব্যাক সংগীতের জগতে প্রবেশ। কয়েক দশক কেটে গিয়েছে। কিন্তু লতা মঙ্গেশকর নামের কোনও বিকল্প নেই। শ্রোতাদের প্রতিটি আবেগ প্রকাশিত হয় তাঁর সুরেলা কণ্ঠে। গ্ল্যামারের অন্তরালে থাকার সিদ্ধান্ত নিলেও সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে নিয়মিত যোগাযোগ রাখেন তিনি। জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানানোর জন্য টুইটারে ধন্যবাদও জানিয়েছেন লতা।  

 

[আরও পড়ুন: হাই সোসাইটি ড্রাগ সিন্ডিকেটের সক্রিয় সদস্য রিয়া! জামিনের বিরোধিতায় যুক্তি এনসিবির]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement