Advertisement
Advertisement
Payal Kapadia

ফের ভারতের কান জয়, এবার গ্রাঁ প্রি পায়েল কাপাডিয়ার, পুরস্কার পেয়ে কী বললেন?

এবারে কানের সর্বোচ্চ সম্মান পাম ডি'ওর পুরস্কারের অন্যতম দাবিদার ছিল পায়েলের ছবি 'অল উই ইমাজিন অ্যাজ লাইট'। তা না পাওয়া গেলেও হাতে এল গ্রাঁ প্রি। কালচে নীল পোশাকে মঞ্চের দিকে এগিয়ে গেলেন পরিচালক। সঙ্গে নিয়ে গেলেন নিজের সিনেমার তিন অভিনেত্রীকে। তিনজনই পরেছিলেন শাড়ি। পুরস্কার পেয়ে উচ্ছ্বসিত পরিচালক।

Payal Kapadia becomes first Indian to clinch Grand Prix award at Cannes Film Festival 2024
Published by: Suparna Majumder
  • Posted:May 26, 2024 8:50 am
  • Updated:May 26, 2024 4:40 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাংলার মেয়ে অনসূয়া সেনগুপ্তর সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কারের ঘোর এখনও কাটেনি। এর মধ্যেই আবার আরও এক সাফল্য ভারতের। এবার গ্রাঁ প্রি সম্মান পেয়ে ইতিহাসের পাতায় নাম লেখালেন পরিচালক পায়েল কাপাডিয়া (Payal Kapadia)। ‘অল উই ইমাজিন অ্যাজ লাইট’ সিনেমার জন্য এই পুরস্কার পেলেন তিনি।

Payal-Kapadia-1

Advertisement

উৎসবের শেষ দিনে আয়োজিত হয়েছিল এই পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান। প্রায় তিরিশ বছর পর কোনও ভারতীয় ছবি (অল উই ইমাজিন অ্যাজ লাইট) কান চলচ্চিত্র উৎসবের মেন ক্যাটাগোরিতে মনোনীত হয়েছিল। এবারে কানের সর্বোচ্চ সম্মান পাম ডি’ওর পুরস্কারের অন্যতম দাবিদার ছিল পায়েলের ছবি। তা না পাওয়া গেলেও হাতে এল গ্রাঁ প্রি। নীল পোশাকে মঞ্চের দিকে এগিয়ে গেলেন পরিচালক। সঙ্গে নিয়ে গেলেন নিজের সিনেমার তিন অভিনেত্রীকে। তিনজনই পরেছিলেন শাড়ি।

Advertisement

 

[আরও পড়ুন: ‘বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি দাম দেয়নি অনসূয়াকে!’ আক্ষেপ পরিচালক কিউয়ের]

অন্ধ্রপ্রদেশে জন্ম পায়েলের। মুম্বইয়ের সেন্ট জেভিয়ার্স কলেজে পড়াশোনা। তার পরই ভর্তি হয়ে যান ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়ায়। একাধিক শর্ট ফিল্ম তৈরি করেছেন পায়েল। তৈরি করেছেন তথ্যচিত্র। ‘অল উই ইমাজিন অ্যাজ লাইট’ মুম্বইয়ে থাকা দুই মালয়ালি নার্সের গল্প। সংসারে বিরক্ত হয়ে রোড ট্রিপে বেরিয়ে পড়ে তারা। এর পরই ঘটে নানা ঘটনা। ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেছেন কাণি কুস্রুতি, দিব্যা প্রভা এবং ‘লাপাতা লেডিজ’ খ্যাত ছায়া কদম।

 

 

পুরস্কার পেয়ে পায়েল বলেন, “প্রতিযোগিতায় মনোনীত হওয়াই আমার কাছে স্বপ্নের মতো ছিল। এটা তো কল্পনারও অতীত। তাই ধন্যবাদ।” নিজের সিনেমার তিন অভিনেত্রীকেও ধন্যবাদ দেন পায়েল। জানান, কীভাবে তাঁরা পরিবারের মতো এই টিমে ছিলেন। এর পরই নিজের লেখা নোট পড়েন পরিচালক। তাতে কান চলচ্চিত্র উৎসবকে ধন্যবাদ দিয়ে তিনি বলেন, “এবার আর কোনও ভারতীয় ছবিকে বাছতে তিরিশ বছর সময় নেবেন না প্লিজ।” নিজের প্রযোজক, কলাকুশলীদের ধন্যবাদ দিতেও ভোলেননি পায়েল।

 

[আরও পড়ুন: ফেসবুক থেকে Cannes জয়! বাঙালি অনসূয়ার ‘শেমলেস’ গল্প বললেন বুলগেরিয়ান পরিচালক ]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ