BREAKING NEWS

৩২ আষাঢ়  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১৬ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

কাঁটাতার পেরিয়ে সম্পর্কের ফাঁদে জড়িয়ে রাইমা, অভিশপ্ত ‘সিতারা’র পরিণতি কী?

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: July 11, 2019 9:25 pm|    Updated: July 11, 2019 9:27 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  রাতের অন্ধকারে পেরনো কাঁটাতার, সীমান্ত পেরনো অনুপ্রবেশকারী, ফাঁদ-লালসা, নারীপাচারের কাহিনি নিয়ে আসছে ‘সিতারা’। ঝুটো সম্পর্কের ফাঁদে পা দিয়ে রোজ কত মেয়েরা বিকে যায়। শিকার হয় নেশাখোর, জুয়ারি স্বামীর। রাতের অন্ধকারে পণ্যের মতো হাত বদল হয়। নারীদের যন্ত্রণার সেসব টুকরো টুকরো কাহিনি নিয়েই তৈরি হয়েছে ‘সিতারা’। মূল চরিত্রে রাইমা সেন

[আরও পড়ুন:  চোখেমুখে বার্ধ্যকের ছাপ, ‘সান্ড কি আঁখ’-এর টিজারে বাজিমাত করলেন তাপসী-ভূমি]

শুটিং শেষ হয়েছে গত বছরই। তবে, সম্প্রতি প্রকাশ্যে এসেছে ‘সিতারা’র ট্রেলার। লেখক আবুল বাশারের খ্যাতনামা উপন্যাস ‘ভোরের প্রসূতি’ অবলম্বনে তৈরি হয়েছে এই ছবি। পরিচালনায় আশিস রায়। ছবির শুটিং হয়েছে উত্তরবঙ্গে। মূলত জলপাইগুড়ি এবং কোচবিহারের বেশ কিছু গ্রামে। স্বামী জীবন শেখের হাত ধরে একদিন রাতে কাঁটাতার পেরিয়ে সিতারা প্রবেশ করে ভারতে। সিতারার অপরিণত মনে সন্দেহমাত্র উঁকি দেয়নি যে নিকাহ করা স্বামী তাঁকে বেচে দিতে পরপুরুষের কাছে।

এপারে এসেই জীবন তাঁর মহাজন কবীরের কাছে বিক্রি করে দেয় স্ত্রী সিতারাকে। লক্ষ্য, স্ত্রীর শরীর বিকিয়ে দিয়ে যদি ব্যবসার হাল ফেরানো যায়। চোরা কারবারি কবীরও সিতারার শরীর ভোগ করার চেষ্টা করে। চক্রান্ত বুঝেই সেই খাঁচা থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা চালায় সিতারা। ঘটনাচক্রে পরিচয় হয় মানব নামে এক সমাজসেবকের সঙ্গে। প্রান্তিকে পড়ে থাকা উদ্বাস্তু মানুষগুলির জন্য কাজ করতে গিয়ে মানবের সঙ্গে যুক্ত হয়ে পড়ে সিতারা। মন থেকে তাঁদের সেই সম্পর্ক গড়ায় শরীর অবধি। কিন্তু সিতারার ক্ষোভ একটাই- ‘সব পুরুষই এক’। কারণ, তাঁর প্রেমিকও লোকসমক্ষে তাঁকে স্বীকার করতে চায়নি। যাবতীয় বাধা সে অতিক্রম করার চেষ্টা করে বুদ্ধিমত্তা এবং ধৈর্য দিয়ে। কিন্তু ততদিনে অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে। তবে হার মানার পাত্রী সে নয়। কী হয় তারপর? সিতারা কি পারবে পুরুষতান্ত্রিক সমাজের রক্তচক্ষুতে দমে না গিয়ে এগোতে? উত্তর মিলবে ‘সিতারা’ মুক্তির সঙ্গেই।

[আরও পড়ুন:  ‘জীবন ছোট হচ্ছে’, ‘সুপার ৩০’ নিয়ে আবেগপ্রবণ নেপথ্য নায়ক আনন্দ কুমার]

‘সিতারা’য় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে এই ছবির গান। সংগীত পরিচালনার দায়িত্ব ছিল কালিকাপ্রসাদের উপর। তবে, তাঁর অকাল প্রয়াণে সেই কাজ শেষ না হওয়ায় দায়িত্ব নেয় দোহার। ছবির চিত্রনাট্য বেঁধেছেন মলয় বন্দ্যোপাধ্যায়। আগামী ১৯ জুলাই দেশের পাঁচটি রাজ্যে- কলকাতা, তামিলনাড়ু, অন্ধ্রপ্রদেশ, বেঙ্গালুরু এবং কেরালাতে মুক্তি পাচ্ছে ‘সিতারা’।

 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement