BREAKING NEWS

৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৪ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের প্রয়াণের পরই সোশ্যাল মিডিয়া ছাড়লেন মেয়ে পৌলমী বসু

Published by: Suparna Majumder |    Posted: November 20, 2020 4:48 pm|    Updated: November 20, 2020 4:51 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শুধু বাবা নয়, নিজের কমরেড, নিজের সহযোদ্ধাকে হারিয়েছেন। কয়েকটা দিন একটু নিজের মত থাকতে চেয়েছিলেন এই চূড়ান্ত বিষন্নতা থেকে বেরিয়ে আসার জন্য। কিন্তু তা আর কেউ থাকতে দিল না। ভ্রান্তিকর, কুরুচিকর পোস্টের উৎপাতে ফেসবুক ছাড়লেন সৌমিত্রকন্যা পৌলমী বসু (Poulami Bose)।

৬ অক্টোবর করোনা (CoronaVirus) আক্রান্ত হয়ে বেলভিউ হাসপাতালে ভরতি হয়েছিলেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় (Soumitra Chatterje)। পরে করোনা (COVID-19) মুক্ত হলেও কোভিড এনকেফ্যালোপ্যাথিই কাল হয় প্রবাদপ্রতীম শিল্পীর। প্রায় চল্লিশ দিন ধরে বাবার পাশে থেকে তাঁকে ফিরিয়ে আনার জন্য লড়াই করে গিয়েছেন পৌলমী বসু। পাশাপাশি বাড়িতে অসুস্থ মা ও ছেলের খেয়ালও রাখতে হয়েছে তাঁকে। ১৫ নভেম্বর ১২.১৫ মিনিটে বেলভিউ হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন বাঙালির শেষ ম্যাটিনি আইডল। তারপর ফেসবুক পোস্টেই কাউকে গল্ফগ্রিনের বাড়িতে যেতে বারণ করেছিলেন পরিবারের সুরক্ষার কথা জানিয়ে। পাশাপাশি কয়েকটা দিন নিজের মত থাকতে চেয়েছিলেন।

[আরও পড়ুন: অশ্লীল মেসেজে বিরক্ত শ্রাবন্তী, অভিনেত্রীর অভিযোগে ধৃত বাংলাদেশি যুবক]

পৌলমীর এই অনুরোধ রাখার প্রয়োজন মনে করেনি নেটদুনিয়ার একাংশ। প্রয়াত কিংবদন্তি অভিনেতা ও তাঁর পরিবারকে নিয়ে নানা ধরনের কুরুচিকর মন্তব্য করা হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এর বিরুদ্ধে ফেসবুকেই ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন সৌমিত্রকন্যা। লিখেছিলেন, “এই অর্ধেক সত্যি খবরের কোনও মানে নেই। এই নোংরামো কবে থাকবে? তারকাদের পরিবারকে নিয়ে মানুষ যা ইচ্ছা তাই বলে দেয়। সোশ্যাল মিডিয়া বলে যা খুশি তাই চলে!”

সোশ্যাল মিডিয়াতেই জানিয়েছিলেন পুলিশের দ্বারস্থ হবেন। সেই মতো বিষয়টি নিয়ে লালবাজারের সাইবার ক্রাইম শাখায় অভিযোগও করেছিলেন পৌলমী বসু। এবার তার জেরেই তিনি ফেসবুক ছাড়লেন বলে মনে করা হচ্ছে। জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যাতেই নিজের ফেসবুক (Facebook) অ্যাকাউন্টটি ডিলিট করেছেন পৌলমী  বসু।

[আরও পড়ুন: বলিউডের আলি ফজলকে মিস করছেন হলিউডের ‘ওয়ান্ডার উওম্যান’, জানালেন টুইটারে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement