BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

এবার আইনি বিপাকে সুশান্তের বায়োপিক, তরজা ২ প্রযোজনা সংস্থার মধ্যে

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: August 25, 2020 8:48 pm|    Updated: August 25, 2020 8:52 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সুশান্ত সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) মৃত্যুর ৫ দিনের মাথাতেই অভিনেতাকে নিয়ে বায়োপিক তৈরির কথা ঘোষণা করেছিলেন বিজয় শেখর গুপ্তা। অন্যদিকে আরেকটি বায়োপিকের কথা ঘোষণা করেন সনোজ শর্মা। যে ছবিতে অভিনয় করার কথা ছিল টিকটক স্টার সচিন তিওয়ারির। যাঁকে কিনা হুবহু সুশান্তের মতো দেখতে। বেশ কিছু টিকটক ভিডিওয় তাঁকে গান অভিনেতার কার্বন কপি বললেও অত্যুক্তি হয় না! এবার তাঁকে নিয়েই ২ প্রযোজনা সংস্থার প্রায় দড়ি টানাটানি অবস্থা। সনোজ শর্মার দাবি, তিনিই প্রথমে সচিনকে নির্বাচন করেন সুশান্তের চরিত্রের জন্য। কিন্তু তিনি নাকি চুক্তি ভেঙে অপর প্রযোজনা সংস্থার ব্যানারে বায়োপিকের কাজ শুরু করেছেন। কিন্তু সুশান্তরূপী সচিন কী বলছেন?

সনোজ শর্মার কথায়, “সচিনকে বায়োপিকের গল্প এবং ওর চরিত্রে ব্যাপারে বুঝিয়ে দিয়েছিলাম। জুলাই মাসেই শুরু হয়ে গিয়েছিল ওয়ার্কশপ। কিন্তু কয়েক দিন পর থেকেই ও ওয়ার্কশপে আসা বন্ধ করে দেন। এমনকী ফোনও ধরা বন্ধ করে দেন। সচিন প্রথমে আমাদের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হন। ওকে আগাম পারিশ্রমিকও দেওয়া হয়। এদিকে প্রি-প্রোডাকশনে ১ কোটি টাকা খরচও হয়ে গিয়েছে। এমতাবস্থায় ওর এই আচরণে বাধ্য হয়ে মুম্বই আদালতে পিটিশন দাখিল করেছি, যাতে চুক্তিভঙ্গ করে অপর প্রযোজনা সংস্থার সঙ্গে কোনওমতেই কাজ না করতে পারে সচিন।” সচিন তিওয়ারি অবশ্য সনোজ শর্মার যাবতীয় এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

Sushant-Sachin

অন্যদিকে, ‘সুইসাইড অর মার্ডার’ শীর্ষক সুশান্তের বায়োপিকের প্রযোজক বিজয় শেখর গুপ্তা জানান, তাঁদের প্রযোজনা সংস্থা যথাযথভাবে আইনত সচিনের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছে। তাঁর বক্তব্য, “সনোজ যে চুক্তিপত্র সচিনের হাতে ধরিয়েছিলেন তা মোটেই বৈধ নয়। তদুপরি, ওঁকে কতটা পারিশ্রমিক দেওয়া হবে কিংবা ছবির নামই বা কী হবে.. এসব কিছুই লেখা ছিল না! সচীন ভীষণই সহজ-সরল। সনোজ, ওকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলতে চেয়েছিলেন।” সুশান্তের ব্যক্তিগত এবং কেরিয়ারের উত্থান-পতন নিয়েই তৈরি হবে এই সিনেমা। বিশেষ করে মৃত্যুরহস্য তুলে ধরা হবে গল্পে।

[আরও পড়ুন: হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরলেন ঋতাভরী, চিকিৎসকদের ধন্যবাদ জানিয়ে পোস্ট মা শতরূপার]

অন্যদিকে, সুশান্তকে নিয়ে বিস্ফোরক দাবি হাসান মুশরিফ নামে NCP’রই এক বিধায়কের। তাঁর মন্তব্য, ”গাঁজা নিত। একাধিক মেয়ের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল! মহান সুশান্তকে এবার ভারতরত্ন দেওয়ার দাবি তুললেও অবাক হব না! উল্লেখ্য, বর্তমানে মহারাষ্ট্রে শিবসেনা, কংগ্রেস ও NCP জোট ক্ষমতায় রয়েছে। এদিকে, সুশান্তের মৃত্যু বিতর্কে বহু আগেই নাম জড়িয়েছে মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের ছেলে আদিত্য ঠাকরের। এই প্রসঙ্গেও NCP নেতা মুশরিফের মন্তব্য, “আদিত্যকে আমি গত ৮ মাস ধরে চিনি। অত্যন্ত নম্র এবং শিক্ষিত ছেলে। অকারণে ওর নামে অপপ্রচার করা হচ্ছে। তবে সত্য সামনে আসবেই।”

সুশান্ত প্রসঙ্গে তাঁর ঘনিষ্ঠজনেদের দাবি, ১৪ জুন অভিনেতার মৃত্যুর পরও তাঁর ফ্ল্যাটের রান্নাবান্না চলছিল। সুশান্তের মৃত্যুর খবর পেয়ে পরিবারের বেশ কয়েকজন ব্যান্দ্রার ফ্ল্যাটে যান। সেখানে গিয়েই তাঁরা দেখেন, সুশান্তের মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই তাঁর ফ্ল্যাটে অন্য যাঁরা থাকতেন, তাঁরা রান্না বসিয়ে দিয়েছেন। এমনকী, তাঁদের কোনও হেলদোল ছিল না বলেও অভিযোগ করে প্রয়াত অভিনেতার পরিবার।

[আরও পড়ুন: ‘ড্রাগনের’ প্রিয়পাত্র, চিন-তুরস্কের সঙ্গে এত খাতির? আমিরের দেশপ্রেম নিয়ে তোপ দাগল RSS]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement