Advertisement
Advertisement

বাস্তবের ব্যতিক্রমী আখ্যান ‘পিউপা’, প্রকাশ্যে থিয়েট্রিক্যাল ট্রেলার

জীবনের এ কাহিনি মিস করবেন না।

Here is the theatrical trailer of Indrasis Acharya’s Pupa
Published by: Sangbad Pratidin Digital
  • Posted:June 20, 2018 8:23 pm
  • Updated:June 20, 2018 8:23 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সম্পর্ক কি কেবল প্রয়োজন? যতক্ষণ প্রয়োজন রয়েছে, ততক্ষণই কি তার অস্তিত্ব থাকে? শিকড়ের টানকে কি উপেক্ষা করা সম্ভব?  এই প্রশ্নই দর্শকের দরবারে রাখতে চলেছেন পরিচালক ইন্দ্রাশিস আচার্য। সেন্সরের সঙ্গে লড়াই করে নিজের ‘পিউপা’র জন্য ছাড়পত্র আদায় করেছেন পরিচালক। এবার প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পালা। কিছুদিন আগেই মুক্তি পেয়েছিল ছবির টিজার। এবার প্রকাশ্যে এল থিয়েট্রিক্যাল ট্রেলার। সম্পর্কের জটিলতা এ এক ব্যতিক্রমী আখ্যান।

[ছেলের জন্য ১ কোটি ২৫ লক্ষ টাকা চাই? প্রিয়াঙ্কার উদ্দেশ্য নিয়ে প্রশ্ন রাহুলের]

Advertisement

বিদেশে উজ্জ্বল ভবিষ্যতের হাতছানি শুভ্রর (রাহুল বন্দ্যোপাধ্যায়) কাছে। এদিকে অসুস্থ বাবা শয্যাশায়ী। তাকে দেখার যে কেউ নেই। দিদি মউয়ের (সুদীপ্তা চক্রবর্তী) ইচ্ছে থাকলেও উপায় নেই। কারণ তাঁর আলাদা সংসার রয়েছে। এদিকে দাদা রজত (কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায়) পেয়েছে ‘ইনফিনিটি’র ডাক। বৃদ্ধ বাবাকে এ অবস্থায় ফেলে রেখে কি শুভ্রর পক্ষে ফিরে যাওয়া সম্ভব? কিন্তু এভাবে পড়ে থেকে তাঁর জীবনটাও কি নষ্ট করা উচিত? সম্পর্কের প্রয়োজনে মানুষ, না মানুষের প্রয়োজনের সম্পর্ক? এমনই জটিল প্রশ্ন আবর্তিত হয়েছে ট্রেলারে। ইতিমধ্যেই ঔরঙ্গাবাদ আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে সেরা পরিচালক, সেরা অভিনেতা, সেরা সাউন্ড ডিজাইনের পুরস্কার পেয়েছে এ কাহিনি।

Advertisement

তবে সেন্সরের থেকে এ ছবিরই ছাড়পত্র আদায় করতে প্রচুর কাঠখড় পোড়াতে হয়েছিল পরিচালককে। আপত্তি তোলা হয়েছিল ছবির একটি ইঞ্জেকশনের দৃশ্য নিয়ে। এক সাক্ষাৎকারে সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল-কে পরিচালক জানিয়েছিলেন, ওই দৃশ্যটি পালটাতে বলা হয়েছিল। কিন্তু ইন্ডিপেনডেন্ট ফিল্ম মেকার ইন্দ্রাশিস হাল ছাড়তে নারাজ ছিলেন। প্যাশন থেকেই ছবি তৈরি করেন। ওই একটা দৃশ্য বাদ দিলে সিনেমার কাহিনিতে ভীষণভাবে তার প্রভাব পড়বে। তাই কিছুতেই দৃশ্যটি বাদ দিতে রাজি হননি পরিচালক। শেষে সিবিএফসি-র মুম্বই বিভাগে পাঠানো হয় ছবিটি। সেখানে ‘পিউপা’ দেখেন সেন্সরের অন্যতম সদস্য বিদ্যা বালান। সিনেমাটি ভীষণ পছন্দ হয় তাঁর। কোনও দৃশ্য বাদ দিয়েই ছবিকে শংসাপত্র দেওয়ার কথা বলে তিনি। জানিয়ে দেন, এ ছবিতে বাদ দেওয়ার মতো কোনও দৃশ্যই নেই। কেবল ছবি শুরুর আগে একটি ডিসক্লেমার দিয়ে দিলেই হবে।

১৯ জানুয়ারি ‘পিউপা’র মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কলকাতা সিবিএফসির টালবাহানায় সে তারিখ পিছিয়ে দিতে হয়। গত কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে ‘ইন্ডিয়ান ল্যাঙ্গোয়েজ ফিল্মস’-এর কম্পিটিশন বিভাগে মনোনীত হয় ইন্দ্রাশিসের ছবি। সেখানে ঘটে আরেক বিপত্তি। প্রদর্শনের সময়ই বন্ধ হয়ে যায় প্রজেক্টর। একরকম বিরক্ত হয়েই উঠে যান আন্তর্জাতিক জুরিরা। হতাশ হন উপস্থিত দর্শকরাও। বিরক্তি প্রকাশ করেন অভিনেতা রাহুল। হতাশা জাহির করেন পরিচালকও। তবে সে সব এখন অতীত। এবার নতুন করে পথ চলা।  কারণ ২০ জুলাই মুক্তির দিন ধার্য হয়েছে। আর সব ঠিক থাকলে সেদিনই খোলস ছেড়ে রঙিন ডানা মেলবে ‘পিউপা’।

[‘মিস ইন্ডিয়া’র মঞ্চে দাক্ষিণাত্যের দাপট, সেরার শিরোপা পেলেন অনুকৃতি]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ