BREAKING NEWS

০৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বুধবার ২৫ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

নাম ‘ন্যুড’, অজুহাতে গোয়া চলচিত্র উৎসব থেকে বাদ সিনেমা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: November 12, 2017 5:49 am|    Updated: November 12, 2017 7:13 am

No Nude show at Goa film festival

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতীয় সিনেমা তথা সংস্কৃতির উপর নানা শিবিরের আক্রমণের অভিযোগ নতুন নয়। বনশালীর পদ্মাবতী ছবি নিয়ে বিস্তর টানাপোড়েন চলছে। এই আবহে আন্তর্জাতিক চলচিত্র উৎসবে জোর বিতর্ক। মনোনীত হয়েও অজ্ঞাত কারণে বাদ গেল ন্যুড নামের একটি সিনেমা। জানা যাচ্ছে ছবিটার নামের জন্যই ছাঁটাই করা হয়েছে।

[রূপকথাকে নতুন করে পর্দায় জীবন্ত করে তুলল শাহিদ-দীপিকার রসায়ন]

রবি যাধবের ছবি ইন্ডিয়ান প্যানোরামা বিভাগ থেকে সরিয়ে নিয়েছে কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক। বিখ্যাত এই মারাঠী পরিচালকের ছবি কেন বন্ধ করা হল তার অবশ্য কোনও সদুত্তর মেলেনি। আগামী ২০ নভেম্বর গোয়ায় আন্তর্জাতিক চলচিত্র উৎসবের সূচনা হবে। সেখানে ১৩ জন জুরি সদস্য ২৬টি সিনেমা বেছে নিয়েছেন। সূত্রের খবর, সিনেমার নামের সঙ্গে নগ্নতা রয়েছে। এমন অভিযোগে বাদ দেওয়া হয় রবির এই ছবি। জানা গিয়েছে জুরিরা ইন্ডিয়ান প্যানোরামা বিভাগে মারাঠি পরিচালকের ছবিটি দিয়ে শুরু করতে চেয়েছিলেন। আচমকাই সেই পরামর্শ থেকে সরে এসে ছবিটিকে চলচিত্র উৎসব থেকেই বাদ দেওয়া হল। পরিচালকও বুঝতে পারছেন না কেন এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। তাঁর ধারণা ছবির নামের জন্য এভাবে কাঁচি চালানো হয়েছে। সিনেমাটি না দেখেই এমন কাণ্ডজ্ঞানহীন কাজ করা হয়েছে। পরিচালক সানাল কুমার শশীধরণের মালয়ালাম ছবি এস দুর্গা’র নামও চাপে পড়ে বদলাতে হয়। প্রথমে সিনেমাটির নাম রাখা হয়েছিল সেক্সি দুর্গা। তাতেও অবশ্য শেষরক্ষা হয়নি। যাধবের বক্তব্য, ‘‘তাঁর কাছে সিনেমার বিকল্প কোনও নাম নেই। নগ্নতাই ছবির বিষয় নয়। এখানে এক নগ্ন মডেলের দুর্দশা, কেন তাঁকে সন্তানের জন্য পেশাকে লুকিয়ে রাখতে হয় তা তুলে ধরা হয়েছে। আমার সিনেমার বিষয় এবং গভীরতার প্রশংসা করেছিলেন বেশ কয়েকজন বিচারক। বিষয়টি স্পর্শকাতর বলে অত্যন্ত যত্ন নিয়ে ছবিটা বানানো হয়। তারপরও এমন সিদ্ধান্ত দুর্ভাগ্যজনক।’’

NUDE-FILM.jpg-2

[আচমকা হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল চারতলা বাড়ি, দায় কার?]

অপূর্ব আসরানি নামে এক জুরি সদস্য অবশ্য এই সিনেমাগুলির পাশে দাঁড়িয়েছেন। তাঁর কথায়, ‘‘ ‘এস দুর্গা এবং ন্যুড ছবিটি সাম্প্রতিক সময়ে ভারতীয় সিনেমার মধ্যে সেরা। যে ছবির মধ্যে দিয়ে ভারতীয় নারীদের বর্তমান অবস্থার কথা সুন্দরভাবে তুলে ধরা হয়েছে।’’ তবে ই-মেল করে সংশ্লিষ্ট দুই ছবির পরিচালককে জানানো হয়েছে তাদের ছবি জায়গা পাচ্ছে না। এই বিষয়ে কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক এবং ফেস্টিভালের ডিরেক্টরের থেকে প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। এই দুটি সিনেমা বাদ পড়ায় জায়গা পেয়েছে ওড়িয়া এবং অসমের দুটি ছবি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে