২ শ্রাবণ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

২ শ্রাবণ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এনআরএস কাণ্ডে রাজ্যজুড়ে এখন যে পরিস্থিতি চলছে, তাতে বীতশ্রদ্ধ সবাই। শুক্রবার এনআরএসে বুদ্ধিজীবীরা যাওয়ার পর পালে হাওয়া লেগেছে। তারপর একের পর এক শিল্পীরা টুইট করতে শুরু করেছেন। সবারই এক বার্তা, ‘সমাজের কথা ভেবে ডাক্তাররা কাজে যোগ দিন।’ এবার সেই তালিকায় যুক্ত হল প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের নাম। টুইটে তিনিও ওই একই আবেদন করেছেন ডাক্তারদের।

সোমবার রাতে রোগীমৃত্যুকে ঘিরে রণক্ষেত্র হয়ে ওঠে এনআরএস হাসপাতাল চত্বর। ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার থেকে কর্মবিরতির সিদ্ধান্ত নেন জুনিয়র ডাক্তাররা। ক্রমে এনআরএসের আন্দোলন ছড়িয়ে পড়ে কলকাতা ও শহরতলির অন্যান্য হাসপাতালেও। এসএসকেএমের পরিস্থিতিও ছিল তথৈবচ। জেলার মধ্যে বর্ধমান, মুর্শিদাবাদ, উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালেও পরিষেবা ব্যহত হয়। জুনিয়র ডাক্তারদের এই আন্দোলনের ফল ভোগ করতে হয় রোগীদের। একাধিক জায়গা থেকে রোগীমৃত্যুর খবরও আসতে থাকে। অভিযোগ ওঠে, চিকিৎসা পরিষেবা ব্যহত হওয়ায় রোগীরা মারা যাচ্ছেন। কিন্তু তাতেও জুনিয়র ডাক্তাররা তাদের দাবিতে অনড়। তাঁদের দাবি না মানা হলে আন্দোলন প্রত্যাহার করা হবে না বলে স্পষ্ট জানিয়ে দেন তাঁরা।

[ আরও পড়ুন: গায়ে হলুদের আসরে কেঁদে ফেলল মেয়ে, কী বললেন নুসরতের বাবা? ]

কিন্তু আন্দোলন করলেও জুনিয়র ডাক্তারদের কাছে পরিষেবা চালু রাখার আবেদন জানালেন অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। সেই সঙ্গে এও জানিয়েছেন, এই কঠিন পরিস্থিতিতে তিনি ডাক্তারদের পাশেই দাঁড়াবেন। টুইটারে তিনি লিখেছেন, “রোগীদের প্রাণ বাঁচানো যেমন ডাক্তারদের কর্তব্য, ঠিক তেমনই আমাদের সকলের কর্তব্য এই অব্যবস্থার বিরুদ্ধে তাঁদের সকলের পাশে দাঁড়ানো। আমি চাই সুস্থ স্বাস্থ্য পরিষেবা তাড়াতাড়ি ফিরে আসুক। হিংসা নয় আমার কলকাতা শান্তির শহর। সবাই মিলে আমরা মানুষের পাশে দাঁড়াই আর রক্ষা করি তাদের প্রাণ।”

শুক্রবার এনআরএস গিয়েছিলেন অপর্ণা সেন, কৌশিক সেন, দেবজ্যোতি মিশ্র, রূপম ইসলাম, অনীক দত্ত, শ্রীলেখা মিত্রের মতো শিল্পীরা। জুনিয়র ডাক্তারদের পাশে থাকার আবেদন জানিয়েছেন তাঁরাও। বলেছেন, জুনিয়র ডাক্তাররা যে দাবিগুলি তুলে আন্দোলন করেছেন, তা ন্যায্য। কিন্তু তাই বলে পরিষেবা বন্ধ করা একেবারেই উচিত নয়। টুইটারে এবার সেই একই কথা বললেন অভিনেতা প্রসেনজিৎও।

[ আরও পড়ুন: দেবের পর এনআরএস কাণ্ডে মুখ খুললেন তৃণমূল সাংসদ মিমি চক্রবর্তী ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং