২ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বিজেপির হয়ে নির্বাচন লড়েছিলেন, মোদি-আডবানীর সঙ্গে ‘সীতা’ দীপিকার ছবি ভাইরাল

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: April 16, 2020 3:04 pm|    Updated: April 16, 2020 3:17 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লকডাউনে দর্শকদের মনোরঞ্জনে এবং মনোবল বাড়াতে রামেই ভরসা রেখেছে কেন্দ্রীয় সরকার। সম্প্রতি, দূরদর্শনে শুরু হয়েছে ‘রামায়ণ’-এর পুনঃসম্প্রচার। যার জেরে পৌরাণিক কাহিনি ভিত্তিক এই ধারাবাহিকের তৎকালীন অভিনেতা-অভিনেত্রীরা ফের খবরের শিরোনামে। প্রতিটা মুহূর্তে তাঁদের সোশ্যাল মিডিয়া আপডেটে নজর রাখছেন নেটিজেনরা। সেরকমই দীপিকা চিখলিয়াও বর্তমানে ফের খবরে রয়েছেন। যাঁকে কিনা রামায়ণে সীতার চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল। এবার তাঁরই শেয়ার করা এক পোস্ট নজর কেড়েছে নেটিজেনদের। যেখানে এক সাদাকালো ছবিতে সীতা ওরফে দীপিকার সঙ্গে দেখা গিয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং লালকৃষ্ণ আডবানীকে। যে ছবি বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো সরগরম।

দীপিকা চিখলিয়ার সঙ্গে দেশের প্রধানমন্ত্রী এবং লালকৃষ্ণ আডবানীকে দেখে অনেকের মনেই কৌতূহল উঁকি দিয়েছে, এই ছবির তথ্য নিয়ে বিশদে জানার জন্যে। নরেন্দ্র মোদির বয়স তখন অনেকটাই কম। দীপিকার পাশে লালকৃষ্ণ আডবানী এবং তাঁরই পাশে বসে রয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। তখনও গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী হননি তিনি। সেই সময়েই একবার বিজেপি প্রার্থী হয়ে সীতা ওরফে দীপিকা নির্বাচনে লড়েছিলেন। সেই সময়কারই ছবি এটা।

[আরও পড়ুন: করোনা মোকাবিলায় আক্রমণের শিকার স্বাস্থ্যকর্মী-পুলিশরা, তীব্র প্রতিবাদ জানালেন সলমন খান]

স্মৃতিরোমন্থন করে দীপিকা লিখেছেন, “বহু বছর আগের ছবি, যখন আমি তৎকালীন বরোদা অর্থাৎ ভদোদরা থেকে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন লড়েছিলাম। নরেন্দ্র মোদিজি, লালকৃষ্ণ আডবানী এবং তৎকালীন গুজরাতের নির্বাচন আধিকারিক নলীন ভট্টের সঙ্গে আমি”। উল্লেখ্য, দীপিকা দিন কয়েক আগেই প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে লকডাউন মানার জন্য অভিনবভাবে আরজি জানিয়েছিলেন অনুরাগীদের। “এটা আমাদের সবার জন্য একটা অগ্নিপরীক্ষা। লক্ষ্ণণরেখা পার করবেন না”, মন্তব্য দীপিকার।

[আরও পড়ুন: সচেতনতা প্রচারে কার্তিকের ‘কুকি পুছেগা’, করোনা যোদ্ধাদের নিয়ে এই শো ইতিমধ্যেই হিট!]

 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Dipika (@dipikachikhliatopiwala) on

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement