১ আষাঢ়  ১৪২৬  রবিবার ১৬ জুন ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

বিক্রম রায়, কোচবিহার: এতদিন ভিন রাজ্যের ভুট্টা চাষিদের মাথাব্যাথার কারণ ছিল যে ফল আর্মি ওয়ার্ম নামের পোকা, এবার তারই দেখা মিলল কোচবিহারে৷ যার জেরে জেলার ভুট্টা উৎপাদন ব্যাপক হারে কমে গিয়েছে এবং এই পোকার আক্রমণে ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে কৃষিদপ্তর সূত্রে খবর৷ যা নিয়ে রীতিমতো মাথায় হাত পড়েছে দপ্তরের আধিকারিকদের।

[ আরও পড়ুন: ভরা গ্রীষ্মে বর্ষার আহ্বান, কৃষিবর্ষ উদযাপনে পুরুলিয়া মাতল রোহিনী পরবে ]

জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যে এই ফল আর্মি ওয়ার্ম ছড়িয়ে পড়েছে মাথাভাঙ্গা ১ নম্বর ব্লক, মাথাভাঙ্গা ২ নম্বর ব্লক এবং শীতলকুচি এলাকার প্রায় ৫০ হেক্টর জমিতে। যা প্রতিরোধে কোমর বেঁধে নেমেছে কৃষি দপ্তর। জেলার কৃষি আধিকারিক বুদ্ধদেব ধর জানিয়েছেন, ফল আর্মি ওয়ার্ম নামের এই পোকা প্রথমবার কোচবিহারে ভুট্টা চাষের জমিতে দেখা গিয়েছে। মূলত এতদিন ভিন রাজ্যের ভুট্টা চাষের জমিতে এই পোকার আক্রমণ দেখা যেত। তবে এবার কোচবিহার জেলায় এর উপস্থিতি লক্ষ্য করা গিয়েছে। তিনি আরও জানান, এই পোকার আক্রমণ রুখতে ইতিমধ্যে স্প্রে শুরু করেছে কৃষি দপ্তর। কিন্তু যে সমস্ত এলাকায় ইতিমধ্যে এই পোকা আক্রমণ করেছে, সেখানকার ফসল নষ্টের ব্যাপক সম্ভাবনা রয়েছে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন বুদ্ধদেব বাবু৷ এখানেই শেষ নয়, এই পোকার প্রকোপ দ্রুত ছড়িয়ে পড়তে পারে বলেও জানিয়েছেন জেলার কৃষি দপ্তরের আধিকারিকরা৷

[ আরও পড়ুন: লাপিয়া চাষে মোটা টাকা আয়ের হাতছানি, জেনে নিন পদ্ধতি ]

জানা গিয়েছে, কোচবিহার জেলায় প্রায় ২৩ হাজার হেক্টর জমিতে ভুট্টা চাষ হয়। ভুট্টা চাষে কোচবিহার রাজ্যে প্রথম কয়েকটি জেলার মধ্যেই রয়েছে। মূলত কোচবিহার ১ এবং ২ নম্বর ব্লক, দিনহাটার ১ ও ২ নম্বর ব্লকে ভুট্টার ব্যাপক চাষ হয়৷ তবে তুফানগঞ্জ মহকুমা, মাথাভাঙ্গা এবং মেখলিগঞ্জ মহকুমাতেও বিগত কয়েক বছরে ভুট্টা চাষ অনেকটাই বেড়েছে। গত দু’বছর যাবৎ সীমান্তের পাঁচ কিলোমিটার এলাকায় ঝলসা রোগের জেরে গম চাষ বন্ধ থাকায়, সেখানে ভুট্টা চাষের ব্যবস্থা করেছে কৃষি দপ্তর। কাজেই চাষিরা সেখানে ভুট্টা চাষের দিকে ঝুঁকেছিলেন। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, এই ফল আর্মি ওয়ার্ম মূলত শুঁয়োপোকার মতো দেখতে৷ এদের লার্ভার মাথার ইংরেজির ওয়াই শব্দটি উলটে লেখা থাকে৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং