২১ ফাল্গুন  ১৪২৭  রবিবার ৭ মার্চ ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

অমানবিক! দলিত কিশোরকে প্রবল মারধর করে গায়ে মূত্রত্যাগ! তদন্তে পুলিশ

Published by: Biswadip Dey |    Posted: January 29, 2021 7:40 pm|    Updated: January 29, 2021 8:14 pm

An Images

প্রতীকী ছবি।

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তার ‘অপরাধ’ বৈষম্যমূলক মন্তব্যের প্রতিবাদ করা। ‘শাস্তি’ দিতে ১৮ বছরের দলিত (Dalit) কিশোরকে মারধরের পাশাপাশি তার গায়ে মূত্রত্যাগও করল চার অভিযুক্ত। এমনই অমানবিক ঘটনার সাক্ষী থাকল তামিলনাড়ুর (Tamil Nadu) পুদুক্কোট্টাই জেলা। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

ঠিক কী ঘটেছিল? পুলিশ জানিয়েছে, দলিত কিশোর তার আত্মীয়দের সঙ্গে পুকুরে মাছ ধরছিল। সেই সময়ই সেখানে হাজির হয় মূল অভিযুক্ত প্রদীপ। কোনও একটা বিষয় নিয়ে তার সঙ্গে কিশোরের ঝগড়া লেগে যায়। ক্রমশ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি। অভিযোগ, এরপরই ওই কিশোরের উদ্দেশে বৈষম্যমূলক মন্তব্য করে প্রদীপ। কিশোর প্রতিবাদ করতেই তাকে মারধর করতে শুরু করে।

[আরও পড়ুন: ‘রসিকতার জন্য সাফাইয়ের দরকার নেই’, আদালত অবমাননার অভিযোগে ক্ষমা চাইবেন না কুণাল কামরা]

তখনকার মতো বিবাদ মিটলেও নতুন করে ঝামেলা করার ফন্দি আঁটে প্রদীপ। এরপর সে তার তিন সঙ্গীকে নিয়ে একটি গাড়িতে করে দলিত কিশোরকে অপহরণ করে এক ফাঁকা জায়গায় নিয়ে যায়। সেখানে তাকে গাড়ি থেকে নামিয়ে প্রবল মারধর করতে থাকে তারা। এরপর অভিযুক্তরা সকলে মিলে ওই কিশোরের গায়ে মূত্রত্যাগও করে। শেষে কোনও মতে সেখান থেকে পালিয়ে বাঁচে নির্যাতিত কিশোর। পরে তাকে এক সরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয়। সেখান থেকেই খবর যায় পুলিশের কাছে। কিশোরের দায়ের করা অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত প্রদীপ ও তার সঙ্গীদের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করেছে পুলিশ। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির পাঁচটি ধারা এবং তফসিলি জাতি ও তফসিলি উপজাতি (অত্যাচার প্রতিরোধ) সংশোধন আইন, ২০০৫ অনুযায়ী অভিযোগ এনেছে পুলিশ।

প্রসঙ্গত, গত বুধবার রাতে উত্তরপ্রদেশে এক দলিত পরিবারের সদস্যদের মারধর করা হয়। ভেঙে দেওয়া হয় বিআর আম্বেদকরের মূর্তিও। সেই ঘটনায় চার অভিযুক্তের বিরুদ্ধেও মামলা দায়ের করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: সম্পর্কে অরাজি হওয়ার জের, প্রেমিকার বাবাকে মিথ্যে অপহরণের মামলায় ফাঁসানোর চেষ্টা যুবকের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement