২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৭ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দিল্লিতে হুড়মুড়িয়ে ভাঙল নির্মীয়মাণ কোচিং সেন্টার, মৃত ৪ পড়ুয়া-সহ পাঁচ

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: January 25, 2020 6:31 pm|    Updated: January 25, 2020 7:48 pm

5 died including four students as a coaching centre in Delhi collapses

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের বাড়ি ভেঙে দুর্ঘটনা দিল্লিতে। ভজনপুরা এলাকায় একটি নির্মীয়মাণ বাড়ি ভেঙে মৃত্যু হল চার পড়ুয়া-সহ ৫ জনের। খবর পেয়ে উদ্ধারকাজে নেমে কয়েকজনকে উদ্ধার করা হয়েছে। তারপরও কেউ কেউ আটকে ছিল। উদ্ধার হওয়া পড়ুয়াদের হাসপাতালে ভরতি করা হলে পরে ৪ জনের মৃত্যু হয়। এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে। বাড়িটিতে কোচিং সেন্টার চলত। তার ফলে বাড়িটি ভাঙায় পড়ুয়ারাই সবচেয়ে বিপদে পড়ে।

[আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্র সরকারকে এড়িয়ে ভীমা-কোরেগাঁও মামলার তদন্তে NIA! ক্ষুব্ধ বিরোধীরা]

ঘড়ির কাঁটায় সময় তখন বিকেল প্রায় সাড়ে চারটে। দিল্লির ভজনপুরা এলাকায় নির্মীয়মাণ একটি বাড়িতে চলছিল কোচিং সেন্টার। ৩০ জন ছোট পড়ুয়ারা পড়াশোনা করছিল। আচমকাই তাল কেটে দিল বিকট শব্দ আর ধাক্কা। বোঝা গেল, বাড়িটি হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ছে। আর তাতেই আটকে পড়ে ছোট পড়ুয়ারা। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে দমকল বিভাগ। ধ্বংসস্তূপ সরিয়ে শুরু হয় উদ্ধারকাজ। ১৩ জন পড়ুয়াকে একে একে বের করে আনা হলেও, বাকিরা তখনও আটকে। তাদের যত দ্রুত সম্ভব উদ্ধার করতে তৎপর হন দমকল কর্মীরা। উদ্ধার হওয়া পড়ুয়ারাও অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাদের হাসপাতালে ভরতি করা হয়। পরে চারজনের মৃত্যু হয়। তিনজন নিখোঁজ বলে দমকল সূত্রে খবর।

[আরও পড়ুন: সংসদে শপথ নিতে আবেদন, ধর্ষণে অভিযুক্ত সাংসদকে জামিন দিল এলাহাবাদ হাই কোর্ট]

ঘটনায় ভজনপুরা এলাকায় তীব্র আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ছে। খবর পেয়ে অভিভাবকরা চিন্তিত হয়ে পড়েন। সকলেই নিজেদের সন্তানদের খোঁজখবর নিতে শুরু করেন। কোচিংয়ে পড়তে পাঠিয়ে এমন একটি দুর্ঘটনার মুখোমুখি হতে হবে, ভাবতেই পারছেন না কেউ। প্রশ্ন উঠছে, বাড়িটি সম্পূর্ণ নির্মাণের আগেই কেন সেখানে কোচিং সেন্টার শুরু হয়েছে। যেখানে ছোটদের সুরক্ষা নিয়ে ভাবাই হয়নি। ঘিঞ্জি এলাকায় বাড়িটি সমস্ত বিধি মেনে তৈরি হচ্ছিল কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দমকলের রিপোর্টের ভিত্তিতে শুরু হবে তদন্ত।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে